ঢাকা | জুলাই ২৪, ২০২৪ - ১২:৩১ অপরাহ্ন

খুনের পর অবৈধ দোকানপাট উচ্ছেদ

  • আপডেট: Sunday, March 27, 2022 - 10:10 pm

 

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহী নিউমার্কেটের সামনের ফুটপাত দখল নিয়ে খুনোখুনির পর সেখানকার অবৈধ দোকানপাট উচ্ছেদ করা হয়েছে। রাজশাহী সিটি করপোরেশনের (রাসিক) নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুহাম্মদ ইমরানুল হক রোববার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত এ উচ্ছেদ অভিযান চালান।

রাজশাহী নিউমার্কেটের সামনের ফুটপাতটি দখলের জন্য ইতোমধ্যে স্থানীয় ব্যবসায়ীদের মধ্যে প্রতিযোগিতা চলে আসছিল। কে কাকে উঠিয়ে ফুটপাত দখল করে দোকানপাট বসাতে পারে তা নিয়ে সব সময়ই প্রতিযোগিতা চলে সেখানে। এ নিয়ে প্রতিনিয়তই ঘটছিল হাতাহাতির মত ঘটনা।

গত ২১ মার্চ নিউমার্কেটের সামনে ফুটপাতে দেওয়া নিজের দোকানে ছুরিকাঘাতে খুন হন রিয়াজুল ইসলাম নামের এক যুবক। দোকানে তার ভাই রিংকুকেও ছুরিকাঘাত করা হয়। তাদের বাড়ি নগরীর ষষ্ঠীতলা এলাকায়। একই এলাকার কয়েকজন যুবক তাদের দোকান উচ্ছেদের চেষ্টা করছিলেন। এর জের ধরে প্রকাশ্যেই ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয় রিয়াজুলকে।

এ ঘটনার পর নিউমার্কেটের সামনের ফুটপাত দখল করে ব্যবসা চালিয়ে আসা সবাইকেই উঠে যাওয়ার নির্দেশ দেয় রাসিক। এ নিয়ে সেখানে মাইকিংও করা হয়। বলা হয়েছিল, স্বেচ্ছায় সরে না গেলে উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হয়। এতে কোন কোন ব্যবসায়ী তার দোকানপাট থেকে মালামাল সরিয়ে নেন। তবে অস্থায়ী দোকানঘরগুলো ভাঙা হয়েছিল না।

রোববার সকালে রাসিকের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুহাম্মদ ইমরানুল হক পুলিশ নিয়ে সেখানে উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করতে যান। রাসিকের কর্মীরা নিউমার্কেটের সামনের ফুটপাতের সব দোকানপাট গুড়িয়ে দেন। পরে শহরের অন্যান্য এলাকায় অভিযান চালান নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট। এ সময় ফুটপাত দখল করে স্থাপনা গড়ে তোলা এবং সড়ক দখল করে নির্মাণ সামগ্রী রাখায় ২০ হাজার, ১০ হাজার, ৫ হাজার ও ২ হাজার টাকা করে মোট চারজনকে ৩৭ হাজার টাকা জরিমানা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইমরানুল হক।

রাসিকের এমন অভিযানকে স্বাগত জানিয়েছেন সাধারণ মানুষ। নিউমার্কেটের সামনে উচ্ছেদ অভিযান চালানোর সময় জুলফিকার হায়দার নামের এক পথচারী বলেন, ব্যস্ততম এই এলাকাটিতে ফুটপাতে হাঁটার মত জায়গা ছিল না। রাস্তা দিয়ে চলতে গেলে রিকশা-অটোরিকশা এসে ধাক্কা দিত। এই ফুটপাত দখল নিয়ে খুনোখুনিও হয়ে গেল। এগুলো উচ্ছেদ করে ভাল করছে সিটি করপোরেশন। এগুলো যেন আবার দখল না হয়ে যায় তার জন্য নজরদারি করতে হবে।

রাসিকের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুহাম্মদ ইমরানুল হক বলেন, ফুটপাত দখল নিয়ে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি মেনে নেওয়া যায় না। তাই আমরা সব ব্যবসায়ীকেই উচ্ছেদ করেছি। নিউমার্কেট এলাকায় অন্তত ২০টি দোকানপাট ছিল। এখানে আর কেউ বসতে পারবে না। আমরা এটা নিশ্চিত করব। এতদিন অভিযান কেন হয়নি জানতে চাইলে তিনি বলেন, উচ্ছেদ করতে গেলেই লোকজন বলে আমরা নাকি গরীবের পেটে লাথি মারছি। সে কারণে সবখানে উচ্ছেদ চালানো যায়নি। তবে এবার আমরা আর ছাড় দেব না।

নিউমার্কেট এলাকায় ফুটপাত দখল নিয়ে ব্যবসায়ী খুনের ঘটনায় পরিবারের পক্ষ থেকে পাঁচজনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়। আসামিরা হলেন- নগরীর ষষ্ঠীতলা এলাকার সাঈদ শেখের ছেলে রানা শেখ (৩০) ও রনি শেখ (২৬), রতনের ছেলে নাঈম (২৬), গৌরহাঙ্গা এলাকার আনুর ছেলে রিমন (২৪) ও দড়িখড়বনা এলাকার হাসুর ছেলে নাঈম (৩৫)। এর মধ্যে শুধু ষষ্ঠীতলা এলাকার নাঈমকে পুলিশ গ্রেপ্তার করতে পেরেছে। অন্য আসামিরা পলাতক। বোয়ালিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাজহারুল ইসলাম রোববার দুপুরে জানান, আসামিদের অবস্থান নিশ্চিত হতে কাজ চলছে। তাদের গ্রেপ্তার করা হবে।