ঢাকা | জুলাই ২৪, ২০২৪ - ১২:৪৭ পূর্বাহ্ন

রাজশাহীতে ঈদের জামাতে শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা

  • আপডেট: Monday, June 17, 2024 - 7:00 pm

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহীতে আজ সকাল সাড়ে ৭টায় হযরত শাহ মখদুম (রহ.) কেন্দ্রীয় ঈদগাহে পবিত্র ঈদুল আজহার প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হয়।

রাজশাহীর বিশাল এ ঈদ জামাতে ইমামতি করেন মহানগরীর হেতমখাঁ বড় মসজিদের পেশ ইমাম মুফতি মাওলানা ইয়াকুব আলী।

কেন্দ্রীয় ঈদগাহে ঈদের প্রধান জামাতে দুই রাকাত ওয়াজিব নামাজ শেষে দেশ, জাতি ও বিশ্ব মুসলিম উম্মাহর সুখ-শান্তি, অগ্রগতি ও কল্যাণ কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়।

এ সময় দেশ ও জাতির স্বার্থে সবার মধ্যে সৌহার্দ্য ও সম্প্রীতি রক্ষার ডাক দেওয়া হয়। আহ্বান জানানো হয় সন্ত্রাসবাদ পরিহারের। এছাড়া যুদ্ধবিধ্বস্ত ফিলিস্তিনের মুসলমানদের মুক্তি ও শান্তির জন্য বিশেষ দোয়া করা হয়।

কেন্দ্রীয় ঈদগাহে রাজশাহী বিভাগীয় কমিশনার ড. দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীর ও জেলা প্রশাসক শামীম আহমেদসহ মুসল্লিরা ঈদুল আজহার নামাজ আদায় করেন।

এদিকে মহানগরীর জজ কোর্ট ঈদগাহ ময়দানে ঈদের নামাজ আদায় করেন বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ও রাজশাহী-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা। ঈদের নামাজ শেষে তিনি উপস্থিত মুসল্লিদের সঙ্গে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।

অন্যদিকে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন আজ সকাল ৭টায় রাজশাহী মহানগরীর কাদিরগঞ্জে হাজি লাল মোহাম্মদ ঈদগাহ ময়দানে পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজ আদায় করেন।

নগরীর সাহেববাজার জিরোপয়েন্টে ঈদের জামাতে অংশ নেন জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর ইকবাল।

এর আগে ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা মহান আল্লাহর দরবারে প্রয়াত বাবা-মা ও স্বজনদের রুহের মাগফেরাত কামনার জন্য মহানগরীর বিভিন্ন গোরস্থানে যান এবং কবর জিয়ারত করেন।

এছাড়া যথাযোগ্য মর্যাদা ও আনন্দমুখর পরিবেশে পবিত্র ঈদুল আজহা উদযাপনের লক্ষ্যে এবারও ব্যাপক কর্মসূচি গ্রহণ করেছে রাজশাহী জেলা প্রশাসন। ঈদের দিন সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে সব সরকারি, আধাসরকারি, স্বায়ত্তশাসিত ও বেসরকারি ভবনসমূহে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়েছে।

সকাল থেকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল, রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগার, এতিমখানা, শিশুকেন্দ্র, শিশু পরিবার, শিশুপল্লী, শিশুসদন, ছোটমণি নিবাস, শিশু বিকাশ কেন্দ্র, সেফ হোম এবং অনুরূপ প্রতিষ্ঠানসমূহে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ উন্নতমানের খাবার পরিবেশন করছে।

এর মধ্যে বাড়তি খাবার হিসেবে পোলাও, মাংস ও সেমাইয়ের স্বাদ নিতে পারছেন সংশ্লিষ্টরা। এছাড়া এদিন সরকারি ভবন ও সড়কসমূহ বিশেষভাবে সজ্জিত করা হয়েছে। সন্ধ্যা থেকে শোভা পাবে বর্ণিল আলোকসজ্জা।