ঢাকা | জুলাই ২০, ২০২৪ - ১:০৭ অপরাহ্ন

সন্ত্রাসীদের দেয়া অবরোধ প্রতিরোধ করুন

  • আপডেট: Friday, November 3, 2023 - 6:45 pm

জনগণের উদ্দেশে যুবমৈত্রীর নেতৃবৃন্দ

স্টাফ রির্পোটার: রোববার থেকে বিএনপির ডাকা অবরোধ কর্মসূচি শক্ত হাতে প্রতিরোধ করতে জনগণের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন রাজশাহী মহানগর যুবমৈত্রীর নেতারা।

শুক্রবার বিকালে শহরের জামিল আখতার রতন স্মৃতি সংসদের সামনে আয়োজিত বিক্ষোভ সমাবেশ থেকে তারা এ আহ্বান জানান। যুবমৈত্রীর কাশিয়াডাঙা থানা কমিটি এই কর্মসূচির আয়োজন করে।

এর আগে জামিল চত্বরের সামনে থেকে একটি মিছিল বের করা হয়। কোর্ট চত্বর, হড়গ্রাম বাজারসহ বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে মিছিলটি আবারও জামিল স্মৃতি সংসদের সামনে গিয়ে সমাবেশে মিলিত হয়।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, নির্বাচন আসলেই বিএনপি-জামায়াত ও তাদের মিত্ররা ক্ষমতায় যাওয়ার লালসায় দেশবিরোধী ষড়যন্ত্রে মত্ত হয়। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি! দেশের মানুষকে জিম্মি করে, বাসে আগুন দিয়ে, পুলিশ পিটিয়ে, প্রধান বিচারপতির বাড়িতে হামলা করে তারা ক্ষমতায় বসতে চাচ্ছে। তবে তারা বারবার ভুলে যায়, ক্ষমতায় যাওয়ার পথ হচ্ছে নির্বাচন। সেই নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করে তারা বরাবরের মতো এবারও সন্ত্রাসের পথ বেছে নিয়েছে। এটি কোন আদর্শিক রাজনৈতিক দলের কর্মকাণ্ড হতে পারে না। তাদের এমন কর্মকাণ্ডের জন্যই আজকে তারা জনবিচ্ছিন্ন। জনগণ তাদের সাথে নেই। শুনছি, তারা আবারও নাকি অবরোধের ডাক দিয়েছে। আমরা জনগণকে বলতে চাই, যারা অবরোধের নামে আপনাদের দৈনন্দিন জীবনকে বাধাগ্রস্থ করতে চাচ্ছে; তাদের সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে প্রতিহত করতে হবে।

কর্মসূচির নামে রাজশাহীকে ‘অস্থিতিশীল’ করতে চাইলে তা প্রতিহত করার ডাক দিয়ে যুবমৈত্রীর নেতারা আরও বলেন, বিএনপি-জামায়াত ক্ষমতায় থাকাকালীন বাংলা ভাই, জঙ্গিবাদ সৃষ্টি করে রাজশাহীকে একটি সন্ত্রাসের শহরে পরিণত করেছিল। আমাদের নেতা জননেতা ফজলে হোসেন বাদশার নেতৃত্বে বাংলা ভাইয়ের বিরুদ্ধে আন্দোলন করে আমরা মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিকে ক্ষমতায় এনেছি। রাজশাহী এখন শান্তির শহর। কিন্তু আমরা দেখতে পাচ্ছি বিএনপি-জামায়াত ও সাম্প্রদায়িক অপশক্তি তলে তলে সক্রিয় হচ্ছে। তারা যেকোন মুহুর্তে যা কিছু করতে পারে। কারণ তাদের রাজনীতির আদর্শই হচ্ছে সন্ত্রাসবাদ।

আমরা বলতে চাই, কর্মসূচির নামে এই শান্তির শহরকে বিএনপি-জামায়াত যদি অস্থিতিশীল করতে চায়, তবে ওয়ার্কার্স পার্টি, যুবমৈত্রীর নেতকার্মীরা তাদের শক্ত হাতে প্রতিহত করবে। আমরা সাধারণ মানুষকে আহ্বান জানাই, আগামীতে নির্বাচন; আপনারা মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তির প্রতি আস্থা রাখুন। এমপি বাদশার নেতৃত্বে উন্নয়নের গতিশীলতায় রাজশাহী যেভাবে এগিয়ে চলেছে, তার ধারাবাহিকতা আমাদের সবাইকে এক হয়ে অব্যাহত রাখতে হবে।

বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন যুবমৈত্রীর কাশিয়াডাঙা থানা কমিটির আহ্বায়ক হাফিজুর রহমান সাগর। বক্তব্য রাখেন মহানগর ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক দেবাশিষ প্রামানিক দেবু, মহানগর যুবমৈত্রীর সভাপতি ও ৭ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মতিউর রহমান মতি, নিউ গভ. ডিগ্রি কলেজ ছাত্র সংসদের সাবেক ভিপি ও যুবমৈত্রীর মহানগরের সহ-সভাপতি রায়হান হালিম, মহানগর ওয়ার্কার্স পার্টির সদস্য মোশারোফ হোসেন প্রমুখ।

এসময় যুবমৈত্রীর নেতা আরিফুল রহমান আরিফ, রতন শেখ, খোরশেদ আলম, সুজন, আলামিন, ইস্তো, নয়ন শেখ, বাঁধন শেখসহ মহানগর ও কাশিয়াডাঙা থানা কমিটির বিভিন্ন স্তরের নেতকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। বিক্ষোভ সমাবেশ পরিচালনা করেন মহানগর যুুবমৈত্রীর সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাইমিনুল হক রানা। এর আগে শুক্রবার বিকাল ৪টায় যুবমৈত্রীর ৩০ নম্বর ওয়ার্ড কমিটির একটি কর্মিসভা অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে প্রধান অতিথি থেকে বিভিন্ন দিক-নির্দেশনা প্রদান করেন মহানগরের সভাপতি কাউন্সিলর মতিউর রহমান মতি।

সোনালী/জগদীশ রবিদাস