ঢাকা | ফেব্রুয়ারী ২৯, ২০২৪ - ১২:২০ অপরাহ্ন

ঘুষকে ‘সম্মানী’ বলা সেই জয়পুরহাটের কর্মকর্তাকে বদলি

  • আপডেট: Monday, October 30, 2023 - 5:32 pm

অনলাইন ডেস্ক: নিয়োগসহ যাবতীয় কাজের বিনিময়ে ঘুষের টাকা নিয়ে সেটাকে ‘সম্মানী’ বলা সেই শিক্ষা কর্মকর্তা শফিকুল ইসলামকে বদলি করা হয়েছে। জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলার মাধ্যমিক এ শিক্ষা কর্মকর্তাকে বদলি করা হয়েছে নওগাঁর রানীনগরে।

রোববার শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের (মাউশি) উপপরিচালক বিপুল চন্দ্র বিশ্বাসের স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ বদলির আদেশ জারি করা হয়। শফিকুল ইসলামকে ৭ নভেম্বরের মধ্যে নতুন কর্মস্থলে যোগ দিতে বলা হয়েছে।

শফিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে বেসরকারি স্কুল-মাদ্রাসায় প্রধান ও সহকারি প্রধান শিক্ষক, কর্মচারী নিয়োগ ও অনলাইনে শিক্ষকদের এমপিওভুক্তির ফাইল পাঠানোর জন্য টাকা নেওয়ার অভিযোগ করেছিলেন আক্কেলপুর উপজেলার শিক্ষকরা।

স্কুল-মাদ্রাসায় এসব পদে নিয়োগ বোর্ডের সদস্য হিসেবে তাকে ৪০ থেকে ৫০ হাজার টাকা দিতে হতো।

পরিমাণে কম হলে তিনি স্কুল-মাদ্রাসার প্রধানদের বিভিন্নভাবে হয়রানি ও কটু কথা বলতেন। আবার এসব পদে এমপিওভুক্তির ফাইল পাঠাতেও তিনি পাঁচ থেকে সাত হাজার টাকা পর্যন্ত চেয়ে নিতেন।

এর আগে শফিকুল ইসলাম স্কুল-মাদ্রাসায় নিয়োগ ও এমপিও’র ফাইল পাঠানোর সময় টাকা নেওয়ার কথা স্বীকার করেছিলেন। তিনি বলেছিলেন, ‘যে টাকা নেওয়া হয় তা ঘুষ নয়, সম্মানী হিসেবে নেওয়া হয়’।

এ নিয়ে ২১ অক্টোবর  জাতীয় একটি দৈনিকে ‘ঘুষ যখন সন্মানী’ শিরোনামে একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়েছিল।

সোনালী/জেআর