ঢাকা | এপ্রিল ১৪, ২০২৪ - ৫:০৫ অপরাহ্ন

যৌন হেনস্তার ক্ষমা নেই

  • আপডেট: Thursday, June 15, 2023 - 8:00 am

অনলাইন ডেস্ক: ভারতীয় বাংলা সিনেমার জনপ্রিয় অভিনেত্রী স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায় বলেছেন, যৌন হেনস্তা কোনো তুচ্ছ ঘটনা নয়, এর কোনো ক্ষমাও নেই।

‘শিবপুর’ সিনেমার প্রচারে অংশ না নেয়ায় প্রযোজক তাকে নগ্ন ছবি ফাঁসের হুমকি দিচ্ছেন দাবি করার পর এবার ফেসবুকে এ মন্তব্য করলেন তিনি।

স্বস্তিকা লিখেছেন, যৌন হেনস্তা কোনো তুচ্ছ ঘটনা নয়। এর কোনো ক্ষমা নেই। প্রযোজকেরা ভাবতে পারেন সব ঠিক হয়ে গিয়েছে, কিন্তু একেবারেই সেটা নয়। আমি ছেড়ে দেব না!

অভিনেত্রী জানিয়েছেন, তার অভিনীত সিনেমা হতে পারে, কিন্তু যে কাজের সঙ্গে যুক্ত থেকে তাকে যৌন হেনস্থার শিকার হতে হয়, সেসব বিষয় এড়িয়ে চলতেই চাইবেন তিনি।

দীর্ঘ পোস্টে স্বস্তিতা লেখেন, যারা গত কয়েক দিন ধরে আমায় ফোন এবং মেসেজে জিজ্ঞাসা করছিলেন ‘শিবপুর’-এর ট্রেলার মুক্তির অনুষ্ঠানে আমি যাব কি না, তাদের বলব, আমি যাব না, এটাই তো স্বাভাবিক! প্রথম কথা, আমি কলকাতায় নেই। আর যদি থাকতামও শহরে, তা হলেও অনুষ্ঠানে যেতাম না।

কিছু দিন আগেই প্রযোজক সন্দীপ সরকারের পক্ষ থেকে স্বস্তিকাকে ‘নগ্ন ছবির নমুনা’ পাঠানোর অভিযোগ প্রকাশ্যে আসে। তার পর ‘শিবপুর’-এর অন্যতম প্রযোজক অজন্তা সিংহ রায় অভিযোগ করেন, যাবতীয় ষড়যন্ত্রের মূলে রয়েছেন ছবির পরিচালক অরিন্দম ভট্টাচার্য।

এর আগে অজন্তা জানিয়েছিলেন, অরিন্দমের বিরুদ্ধে গত ১০ এপ্রিল চারু মার্কেট থানায় তারা লিখিত অভিযোগ জানান। পরিচালকের বিরুদ্ধে জোর করে অর্থ আদায় এবং লাগাতার তাকে হুমকি দেয়ার অভিযোগ আনেন অজন্তা।

কয়েক দিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল, এই সিনেমার প্রচারপর্ব থেকে পরিচালককে দূরে রাখতে চাইছেন নির্মাতারা। তবে এখন জানা যাচ্ছে, নির্মাতাদের পক্ষ থেকে ট্রেলার প্রকাশ অনুষ্ঠানের আমন্ত্রণপত্র নাকি পরিচালকের কাছে পৌঁছায়নি।

এর আগে এপ্রিলের প্রথম সপ্তাহে স্বস্তিকা অভিযোগ করেন, নগ্ন ছবি ছড়ানোর হুমকি দিয়ে নমুনা ছবি পাঠানো হয়েছে তার সহকারীর ই-মেইলে। মেইলটি পাঠিয়েছেন সিনেমাটির প্রযোজক সন্দীপ সরকারের ঘনিষ্ঠ রবিশ শর্মা। যিনি নিজেকে হ্যাকার হিসাবেই পরিচয় দিয়েছেন।

অভিনেত্রীর বিকৃত ছবি পাঠিয়েই থামেননি মেইল পাঠানো ব্যক্তি। তিনি লেখেন, ‘যা করেছি, এর থেকেও খারাপ কিছু করতে পারি। চুপচুাপ নিজের ম্যাডামকে বলুন প্রযোজনা সংস্থার সঙ্গে রফা করে নিতে। নয়তো এর থেকেও খারাপ ছবি ছড়িয়ে দেব সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে।’

গত বছরে জুলাইয়ে এই সিনেমার শুটিং হয়। আগামী ৩০ জুন সিনেমার মুক্তির দিনও ধার্য হয়েছে। ইন্দো-আমেরিকানের ব্যানারে এই সিনেমার দুই প্রযোজক অজন্তা সিংহ রায় এবং সন্দীপ সরকার। তাদের দাবি, পুরো পারিশ্রমিক নিয়েও ছবির প্রচারের অংশ নিতে চাইছেন না অভিনেত্রী। সেই কারণেই হুমকি।

সোনালী/জেআর