ঢাকা | ফেব্রুয়ারী ২১, ২০২৪ - ৯:৫৩ অপরাহ্ন

সরকারি শূন্যপদ খালি প্রায় ৫ লাখ

  • আপডেট: Thursday, June 1, 2023 - 10:00 pm

অনলাইন ডেস্ক: সরকারি দপ্তরের শূন্যপদ এক লাফে অনেক বেড়ে গেছে। গত পাঁচ বছরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী শূন্য পদের সংখ্যা সাড়ে ৩ লাখ থেকে চার লাখের মধ্যে ছিল।

কিন্তু সর্বশেষ পরিসংখ্যান অনুযায়ী এ সংখ্যা বেড়ে প্রায় ৫ লাখে দাঁড়িয়েছে। সবচেয়ে বেশি পদ খালি আছে তৃতীয় শ্রেণীর কর্মচারীদের, এ সংখ্যা প্রায় দুই লাখ।

বৃহস্পতিবার ‘সরকারি কর্মচারীদের পরিসংখ্যান–২০২২’ প্রকাশ করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। এতে থাকা তথ্য অনুযায়ী, সরকারি চাকরিতে শূন্যপদের সংখ্যা ৪ লাখ ৮৯ হাজার ৯৭৬টি। ২০২১ সালে প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী শূন্যপদের সংখ্যা ছিল ৩ লাখ ৫৮ হাজার ১২৫টি। অর্থাৎ একলাফে শূন্যপদের সংখ্যা বেড়েছে ১ লাখ ৩১ হাজার ৮৫১টি।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সংস্কার ও গবেষণা অনুবিভাগের পরিসংখ্যান এবং গবেষণা কোষ প্রতি বছর কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পরিসংখ্যান প্রকাশ করে। ২০২২ সালের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, সরকারি কাঠামোতে অনুমোদিত ১৯ লাখ ১৫১টি পদের বিপরীতে কর্মকর্তা ও কর্মচারী রয়েছেন ১৩ লাখ ৯৬ হাজার ৮১৮ জন।

মন্ত্রণালয় ও বিভাগ পর্যায়ে ২১ হাজার ৭০৯টি পদের মধ্যে শূন্য ৬ হাজার ৮২১টি, সংস্থা ও অধিদপ্তর পর্যায়ে ১৪ লাখ ২২ হাজার ৮২৮টি পদের মধ্যে শূন্য ৩ লাখ ২৫ হাজার ৩৩৬টি।

বিভাগীয় কমিশনার, জেলা প্রশাসক অফিসে ৪০ হাজার ২৭৩টি পদের মধ্যে পদ খালি রয়েছে ১৩ হাজার ৩৫৭। বিভিন্ন স্বায়ত্তশাসিত সংস্থা এবং করপোরেশনে পদের সংখ্যা ৪ লাখ ১৫ হাজার ৩৪১টি, এর মধ্যে শূন্যপদ আছে ১ লাখ ৫৭ হাজার ৮১৯ টি পদ ।

‘সরকারি কর্মচারীদের পরিসংখ্যান’–এর বছর ওয়ারী তথ্য অনুযায়ী, সরকারি চাকরিতে ২০১৮ সালে ৩ লাখ ৯৩ হাজার ২৪৭টি, ২০১৯ সালে ৩ লাখ ৮৭ হাজার ৩৩৮টি, ২০২০ সালে ৩ লাখ ৮০ হাজার ৯৫৫টি এবং ২০২১ সালে ৩ লাখ ৫৮ হাজার ১২৫টি পদ ফাঁকা ছিল।

বর্তমানে সরকারি চাকরিতে প্রথম থেকে নবম গ্রেডের (প্রথম শ্রেণি) ২ লাখ ৪৪ হাজার ৯৬টি অনুমোদিত পদ রয়েছে। এসব পদের বিপরীতে কর্মরত আছেন ১ লাখ ৭৯ হাজার ৫১৪ জন। ফাঁকা আছে ৬৪ হাজার ৫৮২টি পদ।

১০ থেকে ১২তম গ্রেডে (দ্বিতীয় শ্রেণি) ২ লাখ ৯১ হাজার ১১১টি পদের বিপরীতে কাজ করছেন ১ লাখ ৯৩ হাজার ৬৬৪ জন। ফাঁকা রয়েছে ৯৭ হাজার ৪৪৭টি পদ।

১৩ থেকে ১৬তম গ্রেডে (তৃতীয় শ্রেণি) ৭ লাখ ৯৫ হাজার ৪০টি পদ রয়েছে। এসব পদের বিপরীতে কর্মরত আছেন ৬ লাখ ৩ হাজার ৪৩৩ জন। ফাঁকা আছে ১ লাখ ৯১ হাজার ৬০৭টি পদ।

অন্যদিকে, ১৭ থেকে ২০তম গ্রেডে (চতুর্থ শ্রেণি) ৫ লাখ ৫৮ হাজার ৪৬৯টি পদ রয়েছে। এসব পদের বিপরীতে কর্মরত আছেন ৪ লাখ ১৫ হাজার ১০৪ জন। ফাঁকা রয়েছে ১ লাখ ৪৩ হাজার ৩৬৫টি পদ।

সোনালী/জেআর