ঢাকা | এপ্রিল ২০, ২০২৪ - ৪:২০ পূর্বাহ্ন

আইপিএলের শিরোপা ছিনিয়ে নিল চেন্নাই

  • আপডেট: Tuesday, May 30, 2023 - 2:48 am

অনলাইন ডেস্ক: শুধু রুপির ঝনঝনানি নয়, প্রতিদ্বন্দ্বীতার বিচারেও বিশ্বের সেরা টি-২০ লিগ আইপিএল। যার ক্ষণে ক্ষণে, বলে বলে রঙ বদলায়। বৃষ্টিতে ধুঁয়ে যায় না উচ্ছ্বাস। সোমবার গুজরাট টাইটান্স ও চেন্নাই সুপার কিংসের ফাইনালে আবারও প্রমাণিত হলো।

শেষ বলে গত আসরের চ্যাম্পিয়ন গুজরাটের হাত থেকে শিরোপা ছিনিয়ে নিল চেন্নাই। বৃষ্টি আইনে ৫ উইকেটে জিতে ঘরে তুললো পঞ্চম শিরোপা।

আইপিএলের ফাইনাল হওয়ার কথা ছিল রোববার। বৃষ্টির কারণে টসও সম্ভব হয়নি। রিজার্ভ ডে’তে গড়ানো ম্যাচেও হানা দেয় বৃষ্টি। টস হেরে ব্যাট করতে নামে গুজরাট। শাই সুদর্শনের ব্যাটে ভর করে ৪ উইকেটে ২১৪ রান তোলে হার্ডিক পান্ডিয়ার দল।

ওপেনার শুভমন গিল ও ঋদ্ধিমান শাহ ৬৭ রানের জুটি গড়েন। আসরের সর্বাধিক রান করা গিল ফিরে যান ৩৭ রান করে। ঋদ্ধি ৩৯ বলে ৫৪ রানের ইনিংস খেলেন।

তিনে নামা শাই সুদর্শন ৪৭ বলে ৯৬ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলেন। আটটি চার ও ছয়টি ছক্কা মারেন এই বাঁ-হাতি ব্যাটার। এছাড়া অধিনায়ক পান্ডিয়া ১২ বলে ২১ রান যোগ করেন।

প্রথম ইনিংস শেষ হতেই বৃষ্টি নামে। দীর্ঘ বিরতির পর ১৫ ওভারে নেমে আসা ম্যাচে ১৭১ রানের লক্ষ্য পায় দশবার আইপিএল ফাইনালে ওঠা এমএস ধোনির চেন্নাই। বড় রানটা ছোট করে ফেলেন ওপেনার ঋতুরাজ গাইকোয়াড় ও ডেভন কনওয়ে। তারা ওপেনিং ৬.৩ ওভারে ৭৪ রান যোগ করেন।

ঋতু ফিরে যান ২৬ রান করে। কনওয়ে ২৫ বলে ৪৭ রানের ইনিংস খেলেন। চারে নামা আজিঙ্কা রাহানে ১৩ বলে ২৭ রানের ঝড় দেখান। আম্বাতি রাইডু করেন ৮ বলে ১৯ রান।

এরপর ধোনি গোল্ডেন ডাক মারলে চাপে পড়ে চেন্নাই। ওদিকে তিনে নেমে ২১ বলে ৩২ রান করলেও শিভাম দুবে ঠিক সুবিধা করতে পারছিলেন না।

শেষ দুই ওভারে জয়ের জন্য ২১ রান দরকার ছিল চেন্নাইয়ের। ১৪তম ওভারে মাত্র ৮ রান দেন মোহাম্মদ শামি। শেষ ওভারে মুহিত শর্মার জন্য ছিল ১৩ রান। চার বলে মাত্র ৩ রান দিয়ে ম্যাচ বের করেই নিয়েছিলেন তিনি।

কিন্তু শেষ ওভারের পঞ্চম বলে জাদেজার কাছে ছক্কা খান মুহিত। শেষ বলে ফাইন লেগ দিয়ে চার মেরে আহমেদাবাদ স্টেডিয়ামে হলুদের উল্লাস নামান জাদেজা।

সোনালী/জেআর