ঢাকা | এপ্রিল ২৩, ২০২৪ - ২:২৬ অপরাহ্ন

চলন্ত বাইকে বান্ধবীকে কোলে বসিয়ে রোমান্স, অতঃপর

  • আপডেট: Saturday, April 29, 2023 - 5:12 pm

অনলাইন ডেস্ক: ব্যস্ত রাস্তায় বাইক চালাচ্ছে এক তরুণ। আর মুখোমুখি কোলের ওপর বসে তাকে জড়িয়ে ধরে রয়েছেন এক তরুণী। ওই অবস্থায় প্রকাশ্যেই চলছিল ‘রোমান্স’, সঙ্গে বাইক নিয়ে কেরামতিও।

এমন দৃশ্য দেখে স্তম্ভিত হয়ে গিয়েছিলেন পথচারীরা। তাদের মধ্যেই কেউ একজন সেই ঘটনা ক্যামেরাবন্দি করেন। পরে সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার হতেই ভাইরাল হয়ে যায় ভিডিওটি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলোর খবর অনুসারে, গত বুধবার (২৭ এপ্রিল) রাতে ঘটনাটি ঘটেছে ছত্তীসগঢ়ের বিলাসপুরে। ভাইরাল ভিডিওটি দেখে শেষপর্যন্ত অভিযুক্তকে আটক করে পুলিশ। এসময় জরিমানার পাশাপাশি কানে ধরিয়ে সতর্ক করা হয় তাকে।

বৃহস্পতিবার বিলাসপুর ট্রাফিকের ডেপুটি পুলিশ সুপার সঞ্জয় কুমার সাহু বলেন, আমাদের কাছে একটি ভিডিও এসে পৌঁছায়। সেটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বেশ ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, এক তরুণ ও এক তরুণী চলন্ত বাইকে ‘রোমান্স’ করছে। ট্রাফিক আইনের তোয়াক্কা না করে এমন কাণ্ড ঘটানোয় এর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনাটি সিভিল লাইন এরিয়ার ইমলিপাড়া রোডের। ডিএসপি বলেন, বাইকের নম্বর দেখে এর মালিকের খোঁজ পায় পুলিশ। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাকে থানায় ডেকে পাঠানো হয়। জিজ্ঞাসাবাদে সেই যুবক জানান, গাড়িটি তার হলেও ঘটনার সময় হর্ষ তিওয়ারি নামে এক বন্ধু চালাচ্ছিলেন। তার কাছ থেকে হর্ষের বাড়ির ঠিকানাও পায় পুলিশ। পরে তাকে ডেকে পাঠানো হয়।

১৯ বছর বয়সী হর্ষ কাওয়ার্ধার বাসিন্দা। কলেজে পড়াশোনা করছেন তিনি। পাশাপাশি, প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতিও নিচ্ছেন।

ট্রাফিক আইন লঙ্ঘনের দায়ে ভারতের মোটর ভেহিকল আইনে আটক করা হয় হর্ষকে। বিলাসপুর পুলিশের টুইটার হ্যান্ডেলে শেয়ার করা ভিডিওতে বাইকচালক যুবককে কান ধরে ক্ষমা চাইতে দেখা গেছে। বাইকের মালিককে ৮ হাজার ৮০০ রুপি জরিমানা করা হয়েছে। তবে রোমান্সে অংশ নেওয়া হর্ষের বান্ধবীর বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ নেয়নি পুলিশ।

চলন্ত বাইকে বিপজ্জনকভাবে রোমান্স করার জন্য আটকের ঘটনা ভারতে এর আগেও ঘটেছে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তার কিছু ভিডিও ভাইরালও হয়েছিল অতীতে।

গত বছরের ডিসেম্বরে চলন্ত বাইকে বিপজ্জনকভাবে বসে আলিঙ্গন করায় গ্রেফতার হন দুই তরুণ-তরুণী। ঘটনাটি ঘটেছিল বিশাখাপত্তনমে। ব্যস্ত রাস্তায় ওই কাণ্ডের ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর যুগলকে গ্রেফতার করে স্থানীয় পুলিশ।

চলতি বছরের জানুয়ারিতে লখনৌতেও একই ধরনের ঘটনার ভিডিও ভাইরাল হয়েছিল। এতে জড়িত ২৩ বছরের এক যুবককে গ্রেফতার করে ‍পুলিশ। তবে সঙ্গে থাকা মেয়েটি অপ্রাপ্তবয়স্ক হওয়ায় তার বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি।

সোনালী/জেআর