ঢাকা | জুন ১৪, ২০২৪ - ৯:৫৯ অপরাহ্ন

আইরিশদের সহজেই হারালো বাংলাদেশ

  • আপডেট: Friday, April 7, 2023 - 2:00 pm

অনলাইন ডেস্ক: ঢাকা টু কলকাতা আকাশপথে ৪৫ মিনিটের দূরত্ব। তথ্যটা দিয়ে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম কলকাতা নাইট রাইডার্সের বৃহস্পতিবারে ম্যাচে লিটন দাসের খেলার সম্ভাবনার আশা দিয়েছিল। ইঙ্গিত ছিল পরিষ্কার- তৃতীয় দিনই ঢাকা টেস্টে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে জয় পেতে যাচ্ছে বাংলাদেশ।

ইনিংস ব্যবধানে জয়ের জোর সম্ভাবনা ছিল টাইগারদের। কিন্তু তেমনটা হয়নি। ১৩ রানে ৪ উইকেট হারিয়েও দ্বিতীয় ইনিংসে ২৯২ রান তোলে আইরিশরা। বাংলাদেশের ১৫৫ রানের লিড শোধ করে ১৩৮ রানের লক্ষ্য দাঁড় করিয়ে একটু ভয়ও ধরিয়ে দিয়েছিল তারা। তবে মুশফিকের দৃঢ়তায় ৭ উইকেটে জিতেছে বাংলাদেশ।

এই জয়ে তিন ফরম্যাটের সিরিজই ঘরে তুললো লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ ২-০ ব্যবধানে, টি-২০ সিরিজ ২-১ ব্যবধানে জয়ের পর একমাত্র টেস্টে চতুর্থ দিন দ্বিতীয় সেশনের শুরুতেই জয় পেল চন্ডিকা হাথুরুসিংহের দল। তবে নিজেদের ইতিহাসের মাত্র চতুর্থ টেস্ট খেলতে নামা আয়ারল্যান্ড পূর্ণ সম্মান আদায় করে নিয়েছে।

ঢাকা টেস্টে টস জিতে ব্যাট করতে নামে আয়ারল্যান্ড। প্রথম ইনিংসে ২১৪ রান তোলে তারা। অভিষিক্ত মিডল অর্ডার ব্যাটার হ্যারি টেক্টর ৫০ রান করেন। এছাড়া কার্টুস ক্যাম্পার ৩৪, লরকান টাকার ৩৭ ও মার্ক এডায়ার ৩২ রান করেন।

জবাব দিতে নেমে বাংলাদেশ প্রথম ইনিংস থেকে ৩৬৯ রান তোলে। টপ অর্ডারের তিন ব্যাটার ব্যর্থ হলেও সাকিব আল হাসান ও মুশফিকুর রহিম ১৫৯ রানের জুটি গড়েন। সাকিব ৯৪ বলে ১৪ চারের শটে ৮৭ রান করে আউট হন। মুশফিকুর রহিম খেলেন ১২৬ রানের ইনিংস। ১৫টি চার ও একটি ছক্কা হাঁকান তিনি। এছাড়া মেহেদি মিরাজ ৫৫ ও লিটন দাস ৪৩ রানের ইনিংস খেলেন।

দ্বিতীয় ইনিংসে নেমে আইরিশরা ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়লেও হ্যারি টেক্টর, উইকেটরক্ষক লরকার টাকার ও লোয়ার অর্ডার ব্যাটার মার্ক এডায়ার দুর্দান্ত ব্যাটিং করেছেন। টেক্টর প্রথম ইনিংসের মতো দ্বিতীয় ইনিংসেও ফিফটি তুলে নেন। ফিরে যান ৫৬ রান করে। টাকার খেলেন ১০৮ রানের ঝকঝকে ইনিংস। মার্ক এডায়ারের ব্যাট থেকে আসে ৭২ রান।

লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ২৭.১ ওভারে রান তুলে ফেলেছে বাংলাদেশ। মুশফিকুর রহিম ৪৮ বলে ৫১ রানের হার না মানা ইনিংস খেলেছেন। ওপেনার তামিম ফিরে যাওয়ার আগে ২৪ রান যোগ করেন। ওপেনিংয়ে নেমে লিটনও ঝড়ো শুরু করেন। তিনি ১৯ বলে তিন চার ও এক ছক্কায় ২৩ রানের ইনিংস খেলেন।

প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশের হয়ে তাইজুল ইসলাম নেন পাঁচ উইকেট। দ্বিতীয় ইনিংসে বাঁ-হাতি এই স্পিনার চার উইকেট দখল করেন। এবাদত দ্বিতীয় ইনিংস থেকে তুলে নেন তিন উইকেট। আয়ারল্যান্ডের আন্দ্রে ম্যাকব্রিনি প্রথম ইনিংসে নেন ছয় উইকেট। এটি চলতি বছর বাংলাদেশের প্রথম টেস্ট। যা জয়ে শুরু হলো। গত বছরও নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে বছর শুরু করেছিল টাইগাররা। পরের নয় টেস্টে সেরা সাফল্য ছিল চট্টগ্রামে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ড্র।

সোনালী/জেআর