ঢাকা | জুলাই ২৩, ২০২৪ - ৫:৩৩ পূর্বাহ্ন

রাঙ্গামাটিতে গ্রেপ্তার ৭ জঙ্গি ও তিন কেএনএফ সদস্য কারাগারে

  • আপডেট: Friday, October 21, 2022 - 10:48 pm

 

অনলাইন ডেস্ক: রাঙামাটির বিলাইছড়ি উপজেলার দুর্গম বড়থলি ইউনিয়ন থেকে গ্রেপ্তার হওয়া সাত জঙ্গি ও তিন কুকি-চিন ন্যাশনাল পার্টির (কেএনএফ) সদস্যকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। শুক্রবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ফারজানা আক্তার এ আদেশ দেন।

কোর্ট পুলিশের সহকারী উপ-পরিদর্শক আসাদুজ্জামান জানান, সাত জঙ্গি ও ৩ কেএনএফ সদস্যকে রাঙামাটি চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করা হলে বিজ্ঞ আদালত তাদের জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন। আজ রিমান্ড চাওয়া হয়নি। দুয়েকদিন পর আবারও আদালতে হাজির করে রিমান্ডের জন্য আবেদন করা হবে।

উল্লেখ্য, গতকাল বৃহস্পতিবার পার্বত্য চট্টগ্রামের বান্দরবান ও রাঙামাটি জেলার সীমান্তবর্তী পাহাড়ি এলাকাগুলোয় অভিযান চালিয়ে জঙ্গি সংগঠন জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বিয়া’ ও কুকি-চিন ন্যাশনাল পার্টির (কেএনএফ) সদস্যদের আটক করে র‌্যাব। আজ সকালে বান্দরবান সদরে ও বিকেলে তাদের র‌্যাব ও পুলিশ প্রহরায় রাঙামাটিতে আনা হয়।

র‌্যাবের অভিযানে আটক জঙ্গি সদস্যরা হলেন, সৈয়দ মারুফ আহমদ মানিক (৩১), ইমরান হোসাইন শাওন (৩১), কাওসার (৪৬), জাহাঙ্গীর আহম্মেদ(২৭), মো. ইব্রাহিম (১৯), আবু বক্কর সিদ্দীক বাপ্পী (২৩), পলক মিয়া (২৬) এবং পাহাড়ের বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন কেএনএফ সদস্য জৌখান স্যাং বম (১৯), স্টিফেন বম (১৯), মাল সম বম (২০)।

অভিযানকালে প্রশিক্ষণ ক্যাম্প থেকে ৯টি বন্দুক, বন্দুকের ৫০ রাউন্ড গুলি, কার্তুজ কেইস ৬২টি, হাত বোমা ৬টি, কার্তুজ কেইস ১টি, কার্তুজ বেল্ট ২টি, দেশীয় পিস্তল ১টি, ওয়াকিটকি সেট ১টি, চার্জার ৩টি, কুকিচিং লেখা ১০টি মানচিত্র এবং অস্ত্র গোলা বারুদ তৈরির বিভিন্ন সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়।