ঢাকা | ফেব্রুয়ারী ২২, ২০২৪ - ৬:৩০ পূর্বাহ্ন

গাইবান্ধায় উপনির্বাচন: ৪৫ কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ বন্ধ

  • আপডেট: Wednesday, October 12, 2022 - 12:59 pm

অনলাইন ডেস্ক: চলমান গাইবান্ধা-৫ উপ-নির্বাচনে এক-তৃতীয়াংশ কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ বন্ধ ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

বুধবার (১২ অক্টোবর) দুপুর পর্যন্ত নানা অনিয়মের কারণে মোট ৪৫টি কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ বন্ধ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ইসির জনসংযোগ পরিচালক মো. আসাদুল হক।

নির্বাচন ভবনের স্থাপিত কন্ট্রোলরুম থেকে সিসি ক্যামেরা পর্যবেক্ষণ করে ভোটা কারচুপিসহ নানা অনিয়ম পরিলক্ষিত হওয়ায় এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইসি।

ইসির আইডিইএ (২য় পর্যায়) প্রকল্পের উপ-প্রকল্প পরিচালক (কমিউনিকেশন) স্কোয়াড্রন লিডার মো. শাহরিয়ার আলম জানিয়েছেন, ১৪৫টি ভোটকেন্দ্রের অভ্যন্তরে ২টি এবং প্রতিটি ভোটকক্ষের ভেতর (গোপন বুথের দৃশ্য ব্যতিত) ৯৫২ টিসহ সর্বমোট এক হাজার ২৪২টি সিসি ক্যামেরা স্থাপন করা হয়েছে। ভোটগ্রহণ সরাসরি পর্যবেক্ষণের জন্য ঢাকাস্থ নির্বাচন ভবনে একটি পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রও স্থাপন করা হয়েছে।

পর্যবেক্ষণে ৪৫ কেন্দ্রে অনিয়ম ধরা পড়েছে।

সাঘাটা উপজেলার ১০টি ও ফুলছড়ি উপজেলার ৭টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত গাইবান্ধা-৫ আসন।

নির্বাচনে মাহমুদ হাসান রিপন (আওয়ামী লীগ), এ এইচ এম গোলাম শহীদ রঞ্জু (জাতীয় পার্টি), অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম (বিকল্প ধারা), নাহিদুজ্জামান নিশাদ (স্বতন্ত্র) ও সৈয়দ মাহবুবুর রহমান (স্বতন্ত্র) প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। নির্বাচনে ৩ লাখ ৩৯ হাজার ৭৪৩ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগের সুযোগ পাচ্ছেন।

সাবেক সংসদ সদস্য ও একাদশ জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার মো. ফজলে রাব্বী মিয়া গত ২৩ জুলাই মৃত্যুবরণ করায় গাইবান্ধা-৫ আসনটি ওই তারিখে শূন্য হয়েছে। সংবিধান অনুযায়ী, আগামী ২০ অক্টোবরের মধ্যে শূন্য আসনটিতে উপ-নির্বাচনের বাধ্যবাধকতা রয়েছে।

সোনালী/জেআর