ঢাকা | জুন ২১, ২০২৪ - ১১:২০ অপরাহ্ন

রাস্তায় ফেলে যাওয়া বৃদ্ধা মায়ের পাশে ডিসি

  • আপডেট: Sunday, September 4, 2022 - 11:26 pm

চাঁপাইনবাবগঞ্জ ব্যুরো: চাঁপাইনবাবগঞ্জে সন্তান কর্তৃক রাস্তায় ফেলে যাওয়া বৃদ্ধ মা মর্জিনা বেগমের পাশে দাঁড়ালেন চাঁপাইনবাবগঞ্জের জেলা প্রশাসক এ.কে.এম. গালিভ খাঁন।

৮২ বছরের মর্জিনা বেগম। স্বামী হারিয়েছেন ৪০ বছর আগেই। নিজের পেটে পাঁচ পাঁচটি সন্তান ধরে মানুষ করেছেন কিন্তু জীবনের পড়ন্ত বেলায় ঠাঁই হয়নি তাদের কারও ঘরে। শুক্রবার দিনের কোন এক সময় সেই মাকে রাস্তায় ফেলে চলে যান ছোট ছেলে মনিরুল ইসলাম ও তার ছেলে। গত দুই মাস ধরে তার বাসাতেই ছিলো মর্জিনা বেগম। পরে এলাকাবাসীর সহায়তায় আশ্রয় মেলে মেয়ের পাশের বাসার এক ভাড়া বাড়িতে।

এই অমানবিক সংবাদটি দৈনিক সোনালী সংবাদসহ বিভিন্ন গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশিত হলে জেলা প্রশাসক এ.কে.এম. গালিভ খাঁনের হৃদয় নাড়া দেয়। তিনি রোববার সকাল সাড়ে ১০ টায় চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌরসভার বালিগ্রাম মহল্লার কর্দমাক্ত রাস্তা পেরিয়ে সেই বৃদ্ধার বাসায় যান এবং তার শারীরিক খোঁজখবর নেন। তার চিকিৎসা ব্যবস্থা ও দেখভালের দায়িত্ব নেন। এসময় প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে তাকে বিভিন্ন ফলমূল, চাল, ডাল, আটা, শাড়ি-কাপড়, ওষুধ ও আর্থিক সহায়তা হিসাবে নগদ ১২ হাজার টাকা প্রদান করেন।

জেলা প্রশাসক আরও বলেন, মানবতার প্রতীক হলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তাঁর নির্দেশনায় কাউকে অসহায় হিসেবে রাখা হবে না। তার পাশে জেলা প্রশাসন এসে দাঁড়িয়েছে। একজন সন্তানের এহেন কর্মকাণ্ড মোটেও কাম্য নয়। বৃদ্ধা মর্জিনা বেগমসহ পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা জেলা প্রশাসককে পেয়ে আবেগ আপ্লুত হয়ে পড়েন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট দেবেন্দ্রনাথ উরাও, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইফফাত জাহান, সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাঈমা খান, সহকারী কমিশনার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মো. তৌফিক আজিজ এবং জেলা কৃষকলীগ নেতা ও সাবেক জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান আব্দুল হাকিম প্রমুখ।