ঢাকা | জুন ২২, ২০২৪ - ১২:২১ অপরাহ্ন

ভারতে যৌন সহিংসতায় সবচেয়ে বেশি ঝুঁকিতে দিল্লির নারীরা

  • আপডেট: Wednesday, August 31, 2022 - 2:19 pm

অনলাইন ডেস্ক: ভারতে নারীর ওপর যৌন সহিংসতা সবচেয়ে বেশি ঘটে রাজধানী শহর দিল্লিতে। এ শহরে প্রতিদিনই ধর্ষণের শিকার হয় এক বা একাধিক নারী। ফলে নারীদের জন্য দেশের সবচেয়ে অনিরাপদ ও অরক্ষিত শহর হয়ে উঠেছে দিল্লি। অপরাধের তথ্য-উপাত্ত সংরক্ষণ বিষয়ক ভারতের সরকারি সংস্থা ন্যাশনাল ক্রাইম রেকর্ডস ব্যুরোর (এনসিআরবি) সবশেষ এক রিপোর্টে এসব তথ্য উঠে এসেছে। ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম টাইমস নাউ এ খবর দিয়েছে।

তথ্য মতে, ২০২১ সালে নারীদের বিরুদ্ধে যৌন সহিংসতার ১৩ হাজার ৮৯২টি মামলা হয়েছে। আগের বছর এ সংখ্যা ছিল ৯ হাজার ৭৮২। অর্থাৎ মাত্র এক বছরের ব্যবধানে মামলার সংখ্যা বেড়েছে ৪০ শতাংশের বেশি।

এনসিআরবির তথ্য অনুযায়ী, গত বছর (২০২১) প্রতিদিন দুজন করে নাবালিকা ধর্ষণের শিকার হয়েছে। নারীদের বিরুদ্ধে সংঘটিত অপরাধে ১৯টি মহানগরীতে হওয়া মোট মামলার ৩২.২০ শতাংশই হয়েছে দিল্লিতে। ২০২১ সালে মহানগরগুলোতে এ ধরনের মোট মামলার সংখ্যা ছিল ৪৩ হাজার ৪১৪।

নারীদের বিরুদ্ধে যৌন সহিংসতায় দিল্লির পরই রয়েছে বাণিজ্যিক রাজধানী হিসেবে পরিচিত মুম্বাই। শহরটিতেহ এ ধরনের মামলা হয়েছে ৫ হাজার ৫৪৩টি। তৃতীয় স্থানে রয়েছে বেঙ্গালুরু। এখানে মামলা নথিভুক্ত হয়েছে ৩ হাজার ১২৭টি।

যৌন সহিংসতার পাশাপাশি নারী অপহরণ, স্বামীর নির্যাতন ও নাবালিকা ধর্ষণের ঘটনাও সবচেয়ে বেশি রাজধানী দিল্লিতে। রাজধানীতে গত বছর নারী অপহরণের মামলা হয়েছে ৩ হাজার ৯৪৮টি।

এ ছাড়া স্বামীর নির্যাতন ও নাবালিকা ধর্ষণের ঘটনার মামলা হয়েছে যথাক্রমে ৪ হাজার ৬৭৪টি ও ৮৩৩টি। ২০২১ সালে এ মহানগরে দিনে দুজন করে নাবালিকা ধর্ষণের শিকার হয়েছে।

সোনালী/জেআর