ঢাকা | মে ২০, ২০২৪ - ১২:৪৮ অপরাহ্ন

শিরোনাম

রেলের অনিয়ম বন্ধে দুদকের পদক্ষেপ জানতে চায় হাই কোর্ট

  • আপডেট: Wednesday, July 20, 2022 - 11:08 pm

 

অনলাইন ডেস্ক: রেলওয়ের যে অব্যবস্থাপনা বন্ধের দাবিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী মহিউদ্দিন রনি আন্দোলনের প্রেক্ষিতে অনিয়ম বন্ধে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) কী পদক্ষেপ নিয়েছে, তা জানতে চেয়েছে হাই কোর্ট।

দুই সপ্তাহ ধরে কমলাপুর স্টেশনে রনির অবস্থান কর্মসূচি পালনের বিষয়ে গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন নজরে আসায়

বুধবার বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি খিজির হায়াতের হাই কোর্ট বেঞ্চ স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে দুদকের আইনজীবীকে এ নির্দেশ দেয়।

ওই শিক্ষার্থী রেলওয়ের অব্যস্থাপনা ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে প্রতিকার চাইলে উচ্চ আদালত বিষয়টি দেখবে বলেও হাই কোর্ট বেঞ্চ জানিয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দুদকের আইনজীবী মো. খুরশীদ আলম খান।

তিনি বলেন, বিচারপতি নজরুল ইসলাম তালুকদার আমাকে উদ্দেশ্য করে বলেছেন- একজন শিক্ষার্থী হাতকড়া পরা অবস্থায় রেলের সিন্ডিকেট দুর্নীতির বিরুদ্ধে আন্দোলন করছে, এটা দুদক জানে কিনা। তখন আমি ওই সংবাদ প্রতিবেদন পড়েছি। এরপর আদালত বলেছে, যদি জেনে থাকি, তাহলে দুদকের কোনো ব্যবস্থা আছে কিনা, থাকলে কোর্টে জানাতে বলেছে।

আদালতে এই নির্দেশনার বিষয়টি দুদককে অবহিত করেছেন জানিয়ে খুরশীদ আলম খান বলেন, অফিস (দুদক) এই বিষয়ে তথ্য-উপাত্ত আমাকে জানালে আমি আদালতকে জানিয়ে দেব।

রনির আন্দোলনের বিষয়ে আদালতে বক্তব্য তুলে ধরে এই আইনজীবী বলেন, সেই শিক্ষার্থী যদি হাই কোর্টে আসতে রাজি হয়, তাহলে হাই কোর্টে বিষয়টি দেখবে বলেছে।

উল্লেখ্য, রেলওয়ের অব্যবস্থাপনার প্রতিবাদ জানিয়ে ছয় দফা দাবিতে গত ৭ জুলাই থেকে কমলাপুর টিকেট কাউন্টারের সামনে অবস্থান কর্মসূচি পালন করছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের থিয়েটার অ্যান্ড পারফরম্যান্স স্টাডিজ বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী মহিউদ্দিন রনি। মঙ্গলবার পদযাত্রা করে রেলের মহাপরিচালককে স্মারকলিপিও দিয়েছেন তিনি।

দাবি মেনে নিতে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনার পাশাপাশি রেল কর্তৃপক্ষকে ৪৮ ঘণ্টা সময় বেঁধে দিয়েছেন এই শিক্ষার্থী। তার প্রতি সমর্থন জানিয়েছে বিভিন্ন সংগঠন ও শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন অংশ।