ঢাকা | জুলাই ১৪, ২০২৪ - ১১:৩৮ অপরাহ্ন

নাবালক হত্যার দায়ে গ্রেপ্তার গরু

  • আপডেট: Wednesday, June 8, 2022 - 2:45 pm

অনলাইন ডেস্ক: আফ্রিকার দেশ দক্ষিণ সুদানে এক ১২ বছরের নাবালক হত্যার দায়ে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এক গরুকে। শুধু তাই নয় আটকের পর গরুটিকে থানায় নিয়ে বন্দিও করা হয়েছে।

সোমবার ব্রিটিশ দৈনিক দ্য ইন্ডিপেনডেন্ট স্থানীয় পুলিশের বিবৃতির বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত সপ্তাহের এক সন্ধ্যায় গরুটি দক্ষিণ সুদানের লেইকস স্টেটের একটি খামারের কাছে দিয়ে হাঁটছিলো। সেই সময় ওই শিশুর ওপর আক্রমণ চালায় গরুটি। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যায় শিশুটি।

এ বিষয়ে লেইকস স্টেট পুলিশের মুখপাত্র মেজর এলিজাহ মাবর বলেছেন, গরুটিকে গ্রেপ্তার করে রুম্বেক সেন্ট্রাল কাউন্টির একটি থানায় বন্দি রাখা হয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে শিশুটির মরদেহ পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।

তবে অবুঝ প্রাণিদের গ্রেপ্তারের ঘটনা এটাই প্রথম নয় সুদানে। সেখানে অপরাধের শাস্তি হিসেবে জন্তুদের কারাভোগের দৃষ্টান্তও রয়েছে।

এর আগে লেইকস স্টেটেই একটি ভেড়ার হামলায় ৪৫ বছর বয়সি আধিউ চ্যাপিং নামের এক নারী মারা যান। ওই নারীর পাঁজরে ধারাল শিং দিয়ে আঘাত করে অপরাধী ভেড়াটি। এতে ঘটনাস্থলে মারা যান তিনি। পরে ভেড়াটিকে গ্রেপ্তার করে মালেং আগোক পায়ামের একটি থানায় বন্দি করা হয়।

ঘটনার তদন্তে ভেড়ার মালিক নির্দোষ প্রমাণিত হলে ছাড়া পান। কিন্তু ভেড়াটিকে একটি সামরিক শিবিরে কঠোর পরিশ্রমের সাজা দেওয়া হয়েছে। ওই শিবিরে তাকে তিন বছরের জন্য বন্দি রাখা হবে।

সুদানের আইন অনুযায়ী, কোনো পশুর আক্রমণে কেউ মারা গেলে সেটার বিরুদ্ধে সাজার নির্দেশ দেওয়া হয়। সাজা খাটার নির্ধারিত সময় পার হলে সেই পশুটিকে ক্ষতিপূরণ হিসাবে নিহতের পরিবারের হাতে তুলে দেয়া হয়। দীর্ঘ সময় ধরে এই প্রথাই চলে এসেছে সুদানে।

সোনালী/জেআর