ঢাকা | এপ্রিল ১৫, ২০২৪ - ৯:৩৮ অপরাহ্ন

মৌলভীবাজারের ৩ ‘রাজাকারের’ মৃত্যুদণ্ড

  • আপডেট: Thursday, May 19, 2022 - 12:19 pm

অনলাইন ডেস্ক: মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে মানবতাবিরোধী অপরাধে যুক্ত থাকার দায়ে মৌলভীবাজারের বড়লেখার দুই ভাইসহ তিনজনের মৃত্যুদণ্ডের রায় দিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল।

বৃহস্পতিবার (১৯ মে) আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের চেয়ারম্যান বিচারপতি শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বে তিন সদস্যের ট্রাইব্যুনাল এ রায় ঘোষণা করেন।

দণ্ডিত তিন যুদ্ধাপরাধী হলেন, আব্দুল মান্নান ওরফে মনাই, আব্দুল আজিজ ওরফে হাবুল এবং তার ভাই আব্দুল মতিন। তাদের মধ্যে আব্দুল মতিন পলাতক, বাকি দুজন রায়ের সময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

বিচারপতি মো. শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল বৃহস্পতিবার এ মামলার রায় ঘোষণা করে। এ ট্রাইব্যুনালের অপর দুই সদস্য হলেন বিচারপতি মো. আবু আহমেদ জমাদার এবং কে এম হাফিজুল আলম।

ট্রাইব্যুনালের প্রসিকিউশন এ মামলায় যে পাঁচ দফা অভিযোগ এনেছিল, তার সবগুলো প্রমাণিত হওয়ায় তিন আসামির সবাইকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়।

এর আগে গত ১৭ মে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১ এ মামলার রায় ঘোষণার জন্য ১৯ মে দিন ধার্য করেন।

গত ১২ এপ্রিল উভয় পক্ষের যুক্তিতর্ক শেষে যেকোনো দিন মামলাটির রায় ঘোষণার অপেক্ষমাণ (সিএভি) রাখেন ট্রাইব্যুনাল।

ট্রাইব্যুনালে আসামি আব্দুল মান্নানের পক্ষে আইনজীবী এম. সারোয়ার হোসেন, আব্দুল আজিজের পক্ষে আইনজীবী আব্দুস সাত্তার পালোয়ান শুনানি করেন। এছাড়া রাষ্ট্র পক্ষে শুনানি করেন প্রসিকিউটর মোখলেসুর রহমান বাদল ও প্রসিকিউটর সাবিনা ইয়াসমিন মুন্নি।

২০১৪ সালের ১৬ অক্টোবর মৌলভীবাজারের বড়লেখা এলাকায় একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে হত্যা, গণহত্যা, ধর্ষণ, নির্যাতনের মতো পাঁচটি মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে ওই তিন জনের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু হয়। ২০১৬ সালের ২৯ ফেব্রুয়ারি তাদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন ট্রাইব্যুনাল।

পরে ওই বছরের ১ মার্চ আব্দুল আজিজ ও আব্দুল মান্নানকে গ্রেপ্তার করে মৌলভীবাজারের বড়লেখা থানা পুলিশ। অপর আসামি আব্দুল মতিন পলাতক রয়েছেন।

সোনালী/জেআর