ঢাকা | এপ্রিল ২০, ২০২৪ - ৭:১০ অপরাহ্ন

ফেসবুকে অস্ত্রসহ ছবি দিয়ে ভাইরাল ছাত্রলীগ নেতা গ্রেপ্তার

  • আপডেট: Monday, May 9, 2022 - 8:14 pm

স্টাফ রিপোর্টার: ফেসবুকে অস্ত্রসহ ছবি পোস্ট করে ভাইরাল হওয়া পাবনার ছাত্রলীগ নেতা আবু বক্কার সিদ্দিকী রাতুলকে (৩০) গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। রাজশাহী মহানগরীর বোয়ালিয়া থানা সংলগ্ন গ্রান্ড তোফা হল ভবন থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। র‌্যাব-৫ এর রাজশাহীর মোল্লাপাড়া ক্যাম্পের একটি দল রাতে এ অভিযান চালায়।

পরে তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে শহরের সাগরপাড়া এলাকার পরিত্যক্ত জমিদার বাড়ী থেকে একটি বিদেশী পিস্তল, একটি ম্যাগজিন ও তিন রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। সোমবার সকালে র‌্যাব-৫ এর সদর দপ্তরে সংবাদ সম্মেলন করে এসব তথ্য জানানো হয়।

গ্রেপ্তার আবু বক্কার সিদ্দিকী রাতুল পাবনার সুজানগর উপজেলার মানিকহাট ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি। এ ছাড়া সদ্য বিলুপ্ত পাবনা জেলা ছাত্রলীগের কর্মসূচি ও পরিকল্পনা সম্পাদক ছিলেন তিনি। তাঁর বাড়ি সুজানগর উপজেলার গাবগাছী গ্রামে। তিনি নাজিরগঞ্জ স্কুল অ্যান্ড কলেজের সহযোগী অধ্যাপক মোস্তফা কামাল বাবুর ছেলে।

কয়েকদিন আগে রাতুলের কয়েকটি ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ে। এর একটিতে দেখা যায়, হাতে পিস্তল নিয়ে দাঁড়িয়ে আছেন রাতুল। অন্য এক ছবিতে দেখা যায়, শুধু হাতের উপর পিস্তল এবং অপরটিতে গুলিসহ আছেন রাতুল। এ নিয়ে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হলে গা ঢাকা দেন রাতুল।

সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাব-৫ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল রিয়াজ শাহরিয়ার জানান, ফেসবুকে ছবি দেখে অন্যান্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর মত র‌্যাব ছায়া তদন্ত করছিল। তাকে ধরতে অভিযানও শুরু হয়। রোববার রাতে তাকে গ্রেপ্তারের পর তার দেখানো স্থান থেকে অস্ত্রও উদ্ধার হয়েছে।

র‌্যাব অধিনায়ক জানানা, তাদের জিজ্ঞাসাবাদে রাতুল জানিয়েছেন, এলাকায় সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের জন্য তিনি নিজের কাছে পিস্তল রাখতেন। তিনি পাবনায় বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের পরিচয় ব্যবহার করে এলাকায় সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড পরিচালনা করতেন। ফেসবুকে ছবি দেওয়ার মূল উদ্দেশ্য ছিল তার কাছে আগ্নেয়াস্ত্র থাকার কথাটি সবাইকে জানানো। তিনি নিজেকে বড় ধরনের সন্ত্রাসী হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে এই ছবি নিজেই প্রকাশ করেছিলেন।

অস্ত্রসহ গ্রেপ্তারের ঘটনায় আবু বক্কার সিদ্দিকী রাতুলের বিরুদ্ধে নগরীর বোয়ালিয়া থানায় একটি মামলা করা হবে বলেও জানান র‌্যাব-৫ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল রিয়াজ শাহরিয়ার।