ঢাকা | এপ্রিল ১৫, ২০২৪ - ৯:৫১ অপরাহ্ন

প্রাচীর দিয়ে রাস্তা ঘিরে ২৫ পরিবারের চলাচলে বাধা

  • আপডেট: Saturday, May 7, 2022 - 10:33 pm

 

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহী মহানগরীর বালিয়াপুকুর এলাকায় সরকারি রাস্তায় পাকা প্রাচীর দিয়ে দখল করে নেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। রাজশাহী সিটি করপোরেশনের সিসি রাস্তা দখল করে নেয়ায় চরম বিপাকে পড়েছেন ওই রাস্তা ব্যবহার করা ২৫টি পরিবার। রাস্তাটির প্রবেশ মুখ ১৮ ফিট হলেও দখল করে নিয়েছেন ১৬ ফিট। মাত্র দুই ফিটের মধ্যে দিয়ে চলাচল করতে হচ্ছে তাদের। এ নিয়ে চরম দুর্ভোগের মধ্যে দিন পার করছেন ভুক্তোভোগিরা।

পাকা প্রাচীর দিয়ে দখলকারী বালিয়াপুকুর এলাকায় শরিফা খাতুন শ্যামলীর এমন কাণ্ডে এলাকার মানুষ বিভিন্ন জায়গায় অভিযোগ দিয়েও কোন সুরাহা পাননি।

এলাকাবাসী প্রথমে সংশ্লিষ্ট রাসিক কাউন্সিলর আনোয়ারুল আমিন আজব মীমাংসার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়েছেন। এছাড়াও রাসিক বিজ্ঞ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের বরাবরে বিষয়টি সুরাহা করার জন্য আবেদন করা হয়। গত বছর ১৭ নভেম্বর শুনানীর দিনে বিভিন্ন সমস্যার কথা জানিয়ে আরও ১৫ দিন সময় প্রদানের আবেদন করেন শরিফা খাতুন। তার আবেদনের প্রেক্ষিতে ওই বছরের ২৬ নভেম্বর ম্যাজিস্ট্রেট দপ্তরে সকল কাগজপত্র নিয়ে উভয়পক্ষকে উপস্থিত থাকতে একমত হন তারা।

এ অবস্থায় শরিফা খাতুন শ্যামলী মীমাংসায় না বসে ওই বছরের ২৪ নভেম্বর জেলা রাজশাহীর অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ৫জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন। মামলার আসামিরা হলেন, স্থানীয় রাসিক কাউন্সিলর আনোয়ারুল আমিন আজব, বালিয়াপুকুর এলাকার মৃত আব্দুল লতিফের ছেলে মাসুদ করিম, খয়ের উদ্দিনের ছেলে টিটু, আব্দুল মতিন (মাস্টার) ও আব্দুস সামাদ।

ভুক্তভোগী আবুল হোসেন, আলাউদ্দিন তালুকদার, আব্দুল মতিন, আব্দুস সামাদ সরকার, কনা খাতুন, লিপি বেগমসহ এলাকাবাসী বিষয়টি সমাধানে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। পাশাপাশি তারা রাসিক’র রাস্তার ওপরে নির্মিত স্থাপনা উচ্ছেদসহ চলাচলের সুবিধা করতে আবেদন জানান।

এ ব্যাপারে শরিফা খাতুন শ্যামলী বলেন, জমিটি আমার পৈত্রিক সম্পত্তি। এখানে নকশাকৃত রাস্তা নেই। কাউন্সিলরসহ এলাকার লোকজন জোর করে রাস্তা তৈরি করেছে। এ বিষয়ে আদালতে মামলা রয়েছে। বিজ্ঞ আদালতের রায়ের জন্য অপেক্ষা করছি। অন্যথায় আমার জমির ওপর দিয়ে রাস্তা দিতে পারি না।