ঢাকা | এপ্রিল ১৫, ২০২৪ - ৪:৫৮ পূর্বাহ্ন

ইউক্রেন নিয়ে গোপন পরিকল্পনা পোল্যান্ডের, দাবি মস্কোর

  • আপডেট: Friday, April 29, 2022 - 1:52 pm

অনলাইন ডেস্ক: রাশিয়ার পররাষ্ট্র বিষয়ক গোয়েন্দা সংস্থা (এসভিআর) এর প্রধান সারগেই ন্যারিসকিন বলেছেন, তাদের কাছে গোয়েন্দা তথ্য আছে যে, পোল্যান্ড ও যুক্তরাষ্ট্র ইউক্রেনের বেশ কিছু অঞ্চল পুনরুদ্ধার করতে একসঙ্গে কাজ করার পরিকল্পনা করছে। পোল্যান্ড মনে করে, এসব অঞ্চলে ‘ঐতিহাসিক’ভাবে তাদের অধিকার রয়েছে।

শুক্রবার রুশ গণমাধ্যম আরটি এ খবর জানায়।

বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে নারিশকিন জানান, কথিত পরিকল্পনা অনুসারে, এ ‘পুনঃএকত্রীকরণের’ প্রথম পর্যায়ে ‘রুশ আগ্রাসন থেকে সুরক্ষার’ অজুহাতে পশ্চিম ইউক্রেনে পোলিশ ‘শান্তিরক্ষীদের’ মোতায়েন করা হবে।

কথিত এ অভিযানের বিশদ বিবরণ নিয়ে এখন ওয়ারশো (পোল্যান্ডের রাজধানী) এবং মার্কিন সরকারের মধ্যে আলোচনা করা হচ্ছে। তিনি দাবি করেন, অভিযানটি ন্যাটোর আদেশ ছাড়াই চালানোর জন্য পরিকল্পনা করা হয়েছে; শুধুমাত্র স্বেচ্ছাসেবক রাষ্ট্রগুলো এতে অংশ নিচ্ছে।

নারিশকিন বলেন, খুব বেশি সংখ্যক দেশকে এ পরিকল্পনার সঙ্গে নিতে চাচ্ছে না পোল্যান্ড। এ নিয়ে পোলিশ কর্তৃপক্ষ উদ্বিগ্নও নয়। কারণ, তারা তাদের কর্মকাণ্ডে ‘অপ্রয়োজনীয় সাক্ষীদের’ সংখ্যা কমিয়ে আনতে চায়।

তিনি ব্যাখ্যা করেন যে, মস্কোকে মোকাবেলা করতে তারা প্রকাশ্যে তাদের লক্ষ্য ঘোষণা সত্ত্বেও পোলিশ সেনাদের ইউক্রেনের এমন কিছু অংশে মোতায়েন করা হবে যেখানে তাদের রাশিয়ান বাহিনীর সাথে লড়াই জড়িয়ে পড়ার প্রায় কোন সুযোগ থাকবে না।

রাশিয়ান তথ্য অনুসারে, পোলিশ সেনাদের প্রকৃত ‘কৌশলগত উদ্দেশ্য’ ইউক্রেনীয় ন্যাশনাল গার্ডের কাছ থেকে কৌশলগত ফ্যাসিলিটিগুলোর নিয়ন্ত্রণ নিজেদের হাতে নেয়া।

তিনি দাবি করেন, পোলিশ সরকার মনে করে যে, পশ্চিম ইউক্রেনে তার বাহিনীকে প্রবেশ করানো দেশটিকে বিভক্তির দিকে নিয়ে যাওয়ার উচ্চ সম্ভাবনা রয়েছে। এ ক্ষেত্রে, যে অঞ্চলগুলোতে শান্তিরক্ষী মোতায়েন করা হবে তার নিয়ন্ত্রণ ওয়ারশের হাতেই থাকবে।

সোনালী/জেআর