ঢাকা | ফেব্রুয়ারী ২২, ২০২৪ - ৭:৫১ পূর্বাহ্ন

২০ বছর ধরে সড়ক ছাড়া দাঁড়িয়ে আছে সেতু

  • আপডেট: Sunday, April 24, 2022 - 11:16 pm

 

সাইদ সাজু, তানোর থেকে: চারদিকে ফসলি জমি। যেদিকে চোখ যায় শুধু বোরো খেত। এরই মধ্যে দীর্ঘ ২০ বছর ধরে দাঁড়িয়ে আছে একটি সেতু। নেই কোনো সংযোগ সড়ক। ফলে রাজশাহীর দুই উপজেলা তানোর ও মোহনপুরের মানুষের জন্য তৈরি করা এ ব্রিজটি কোনো কাজে আসছে না।

স্থানীয়রা বলছেন, ব্রিজটি এভাবে তৈরি করে সরকারি অর্থ অপচয় করা হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ও এলাকাবাসীর সাথে কথা জানা গেছে, বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের সময়ে ২০০৩ সালে সেতুটি নির্মাণের উদ্যোগ নেন তৎকালীন চাঁন্দুড়িয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মফিজ উদ্দিন।

সরজমিনে দেখা যায়, রাজশাহী-তানোর সড়কের চাঁন্দুড়িয়া মোড় থেকে নেমে দেওতলা গ্রামের মধ্যদিয়ে চেয়ারম্যানের বাড়ির পার্শ্বে দিয়ে রাস্তাটি মোহনপুর উপজেলার সাথে যোগাযোগের জন্য এই ব্রিজটি তৈরি করা হয়েছিলো। কিন্তু সরকার পরিবর্তনের ফলে সংযোগ সড়কটি আর তৈরি করা হয়নি। ফলে এভাবেই গত ২০ বছর ধরে সংযোগ সড়ক ছাড়াই পড়ে আছে ব্রিজটি। এরপর শুরু হয়েছে ধান ক্ষেতের মাঠ। অবশ্য বর্ষাকালে মাঠ শিবনদের পানিতে ডুবে যায়। প্রায় ১৫ মিটার পরে চেয়ারম্যানের পুকুর পাড়ে শেষ হয়েছে রাস্তাটি।

চাঁন্দুড়িয়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মফিজ উদ্দিন বলেন, তৎকালিন সময়ে প্রায় ১৫ লাখ টাকা ব্যয়ে ব্রিজটি নির্মাণ করা হয়েছিল। সেতুর সংযোগ সড়কের রাস্তা তৈরি বাকি ছিল। জমি অধিগ্রহণের প্রক্রিয়াও প্রায় শেষ পর্যায়ে ছিল। কিন্তু সরকার পরিবর্তনের ফলে শেষ পর্যন্ত সেটি সম্ভব হয়নি। এতে দীর্ঘ প্রায় ২০ বছর ধরে সংযোগ সড়ক ছাড়াই দাঁড়িয়ে আছে সেতুটি। মনে হয় দেখার যেন কেউ নেই।