ঢাকা | জুলাই ২০, ২০২৪ - ৯:১০ পূর্বাহ্ন

সরকার ভর্তূকি মূল্যে কৃষককে সার পৌঁছে দিচ্ছে: খাদ্যমন্ত্রী

  • আপডেট: Sunday, April 24, 2022 - 10:35 pm

পোরশা (নওগাঁ) প্রতিনিধি: খাদ্যমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা সাধন চন্দ্র মজুমদার বলেছেন, সরকারের দেওয়া প্রণোদনার বীজ ও সার আপনাদের কাছে আমানত স্বরুপ। এর যথাযথ ব্যবহারের মাধ্যমে আউশের উৎপাদন বাড়িয়ে খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিতে ভূমিকা রাখতে হবে। রোববার নওগাঁর পোরশা উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে উফশী আউশ উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষ্যে ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে সার ও বীজ বিতরণ অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

মন্ত্রী বলেন, সারা বিশ্বে সারের দাম বাড়লেও সরকার ভর্তূকি মূল্যে কৃষককে সার পৌঁছে দিচ্ছে। এদেশের বিজ্ঞানীরা উচ্চ ফলনশীল ধানের জাত উদ্ভাবন করে কৃষকের কাছে নিয়ে গেছেন। একারনে জমি কমলেও কৃষকের উৎপাদন বেড়েছে। শেখ হাসিনার সরকারের আমলে কেউ না খেয়ে মারা যায়নি বলে উল্লেখ করেন তিনি। প্রকৃত কৃষকের হাতে প্রণোদনা পৌঁছে দিতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি যত্নবান হওয়ার আহবান জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, কৃষক নন কিংবা চাষের জমি নাই এমন কেউ যেন প্রণোদনার তালিকায় অন্তর্ভূক্ত না হয় তা নিশ্চিত করতে হবে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাজমুল হামিদ রেজার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ শাহ্ মঞ্জুর মোরশেদ চৌধুরী ও নওগাঁ জেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি আব্দুল খালেক। মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা ওয়াজেদ আলী মৃধার পরিচালনায় এতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ সঞ্জয় কুমার সরকার। এসময় সহকারি কমিশনার (ভূমি) জাকির হোসেন, উপজেলা ভাইস চেযারম্যান কাজিবুল ইসলাম, থানা অফিসার ইনচার্জ জহুরুল হক, নিতপুর ইউপি চেয়ারম্যান এনামুল হক, তেতুলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান ফজলুল হক শাহ, শিক্ষা কর্মকর্তা মাযহারুল ইসলাম, জনস্বাস্থ্য কর্মকর্তা মিলন কুমার সহ বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা বৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এছাড়া অনুষ্ঠানে মহিলা অধিদপ্তরের আত্ম কর্মসংস্থান কর্মসূচির আওতায় ৪৭ জন মহিলার মাঝে চার লাখ ঊননব্বই হাজার টাকা চেক বিতরণ করেন তিনি। পরে ৫০ জন ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর শিক্ষার্থীদের মাঝে বাইসাইকেল বিতরণ করেন এবং ২১০ জন মেধাবী শিক্ষার্থীর হাতে শিক্ষাবৃত্তির চেক তুলে দেন।

এদিকে নওগাঁ প্রতিনিধি জানান, নওগাঁ সদর উপজেলায় ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক পর্যায়ের কৃষকদের মাঝে কৃষি প্রণোদনার সার ও বীজ বিতরন কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়েছে। ২০২১-২২ অর্থ বছরে খরিপ-১/২২-২৩ মৌসুমে আউশ ধান উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষ্যে প্রণোদনা কর্মসূচির আওতায় ১৯শত ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে এই বীজ ও রাসায়নিক বিতরন করা হচ্ছে। প্রতিজন কৃষক প্রণোদনা হিসেবে ৫কেজি বীজ, ২০কেজি ডিএপি ও ১০কেজি এমওপি সার পাচ্ছেন। রবিবার সদর উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গনে সদর কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের বাস্তবায়নে এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন নওগাঁ-৫ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার নিজাম উদ্দিন জলিল জন। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মির্জা ইমাম উদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন কৃষি কর্মকর্তা ড. মো. আনোয়ারুল ইসলাম। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মো. রফিকুল ইসলাম (রফিক), ভাইস চেয়ারম্যান ইলিয়াস তুহিন রেজা, শাহানাজ আক্তার নাইস প্রমুখ।