ঢাকা | ফেব্রুয়ারী ২২, ২০২৪ - ৬:৫০ পূর্বাহ্ন

রোজার শুরুতেই রাজশাহীতে বাড়লো ফলের দাম

  • আপডেট: Sunday, April 3, 2022 - 10:04 pm

 

স্টাফ রিপোর্টার: রোজার শুরুতেই রাজশাহীর বাজারের সব ধরনের ফলের দাম বেড়ে গেছে। রোববার নগরীর সাহেববাজার, কোর্টবাজার ও শালবাগান বাজার ঘুরে এ চিত্র দেখা গেছে। এ নিয়ে সাধারণ মানুষ ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। তবে ব্যবসায়ীরা বলছেন, তাদের কিনতে হয়েছে বেশি দামে। তাই বিক্রিও করছেন বেশি দামে।

বাজার ঘুরে দেখা যায়, প্রতিটি ফলের দাম ১০-৫০ টাকা পর্যন্ত বৃদ্ধি পেয়েছে। যেমন তরমুজের দাম গত শনিবার ছিলো ৩৫-৪০ টাকা কেজি। রোজার প্রথম দিনে তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪৫-৫০ টাকা কেজিতে। আপেল ১৮০ টাকা থেকে বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৪০ টাকা, বাসপাতি ২১০ থেকে বেড়ে এখন বিক্রি হচ্ছে ২২০-২৪০ টাকায়। খেজুর গত বছরের তুলনায় এবার কেজি প্রতি দাম বেড়েছে ৪০-৫০টাকা। রোববার সাহেববাজারে ১৮০-৭৫০ কেজি দরে খেজুর বিক্রি করতে দেখা যায়।

শুধু তাই নয়, কমলা ২০০ টাকা থেকে বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৪০ টাকায়। মালটা বিক্রি হচ্ছে ১৮০ টাকা কেজি দরে। বেদানা ৩০০ থেকে বেড়ে এখন বিক্রি হচ্ছে ৩৫০-৪০০ টাকা কেজি দরে।

সাহেববাজারের ফল ব্যবসায়ী রাব্বি বলেন, কয়েকদিন ধরে তাদের ফল কিনতে হচ্ছে আগের চেয়ে বেশি দামে। তাই বাধ্য হয়ে তাদেরও একটু বেশি দামে বিক্রি করতে হচ্ছে। তরমুজ বিক্রেতারা জানান, হঠাৎ করে শনিবার তরমুজের নতুন চালানে মূল্য বৃদ্ধি পাওয়ায় তাদের বর্ধিত মূল্যে বিক্রি করতে হচ্ছে।

সাহেববাজারে ফল ক্রেতা মো. পলাশ বলেন, সারাদিন রোজা রাখার পরে তো আর ডাল ভাত খেয়ে ইফতার করা যায় না। তাই পরিবারের সদস্যদের জন্য একটু ফল নিতে এসে আহম্মক সেজে গেছেন। প্রতিটি ফলের মূল্য ২০-৫০ টাকা কেজিতে বেড়ে গেছে। কর্তৃপক্ষের বাজার মনিটরিং করা দরকার।