ঢাকা | মে ৩০, ২০২৪ - ৪:১০ অপরাহ্ন

জনগণ যেন সেবা থেকে বঞ্চিত না হয়: প্রধানমন্ত্রী

  • আপডেট: Sunday, April 3, 2022 - 12:19 pm

অনলাইন ডেস্ক: বিসিএস প্রশাসন ক্যাডারে নিয়োগের পর যারা মাঠপর্যায়ে কাজ শুরু করতে যাচ্ছেন, তারা যেন মানুষের মৌলিক অধিকার বাস্তবায়নে সচেষ্ট হন তার অনুরোধ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

রাজধানীর শাহবাগে বিসিএস প্রশাসন একাডেমিতে ১২১তম, ১২২তম এবং ১২৩তম আইন ও প্রশাসন প্রশিক্ষণ কোর্সের সমাপনী ও সনদ বিতরণী অনুষ্ঠানে এই অনুরোধ জানান তিনি। রোববার সকালে গণভবন প্রান্ত থেকে ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মাধ্যমে সংযুক্ত হন প্রধানমন্ত্রী।

প্রশাসন ক্যাডারের কর্মকর্তাদের উদ্দেশে শেখ হাসিনা বলেন, ‘একটি কথা মনে রাখতে হবে, বাংলাদেশের জনগণ, তারা যেন কখনও সেবা থেকে বঞ্চিত না হয়। কারণ তাদের ভাগ্যের পরিবর্তনের জন্যই তো এই স্বাধীনতা।

তিনি বলেন, ‘যখনই যে যেখানে দায়িত্ব পালন করবেন মানুষের কথা চিন্তা করবেন, যে এলাকায় কাজ করবেন. সে এলাকা সম্পর্কে জানতে হবে, সে এলাকার মানুষের আচার-আচরণ সম্পর্কে জানতে হবে, জীবন-জীবিকা সম্পর্কে জানতে হবে। কিভাবে তাদের উন্নতি করা যায় সে বিষয়ে আপনাদেরই সবচেয়ে ভালো সুযোগ রয়েছে।’

২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত-সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গঠনে যে রূপকল্প প্রণয়ন করেছে সরকার, তার বাস্তবায়নে প্রশাসনিক কর্মকর্তারাই মূল কারিগর হবেন বলে উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী।

প্রশাসন ক্যাডারের নবীন কর্মকর্তাদের উদ্দেশে শেখ হাসিনা বলেন, ‘আজকে আপনাদের মধ্যে থেকেই সবাই উচ্চপদে যাবেন, দেশের জন্য আরও আরও উন্নত কাজ করবেন। মাঠ পর্যায়ের কাজের মধ্য দিয়ে যে জ্ঞান লাভ করবেন, যখন উচ্চপর্যায়ে যাবেন আরও বাস্তবভাবে কাজ করতে সুযোগ পাবেন। বাংলাদেশকে ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত দেশ হিসেবে গড়ে তোলার যে পরিকল্পনা নিয়েছি,সেই পরিকল্পনা বাস্তবায়নে মূল কারিগর আপনারাই হবেন।এখন থেকে আপনাদের সেভাবে কাজ করতে হবে।’

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন।

শেখ হাসিনা বলেন, আজকে আমরা লক্ষ্য স্থির করেছি, আজকে আমাদের মাথাপিছু আয় বৃদ্ধি পেয়েছে, আমাদের অর্থনীতি মজবুত হয়েছে। এবং জাতিসংঘের চাহিদা মোতাবেক এখন আমরা উন্নয়নশীল দেশের মর্যাদা পেয়েছি। শুধু মর্যাদা পেলেই হবে না, উন্নয়নশীল দেশে হিসেবে নিজেদের আরও এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে। আমাদের আরও শক্তিশালী করতে হবে দেশকে। কারণ এই বাংলাদেশে একটি মানুষ ক্ষুধার্ত থাকবে না, একটি মানুষ গৃহহীন থাকবে না। প্রতিটি মানুষ স্বাস্থ্যসেবা পাবে, শিক্ষার সুযোগ পাবে, উন্নত জীবন পাবে-এটাই তো জাতির পিতার একমাত্র লক্ষ্য ছিল।

প্রশাসন ক্যাডারের কর্মকর্তাদের উদ্দেশে তিনি বলেন, আপনারা অল্পসল্প ভাগ্যবান মানুষ দেশ ও দেশের মানুষের সেবা করার সুযোগ পেয়েছেন। কাজেই আপনাদের চিন্তাভাবনা জনকল্যাণমুখী হতে হবে।

সোনালী/জেআর