ঢাকা | জুলাই ২৫, ২০২৪ - ৩:২৬ পূর্বাহ্ন

‘ডাইনী বধূ’ দেখতে ভিড়

  • আপডেট: Wednesday, March 30, 2022 - 10:21 pm

 

স্টাফ রিপোর্টার: জমিদার জিতেন্দ্রনাথ রায়ের বড় ছেলে ডাক্তার। মানবসেবা করবেন বলে বিয়ে করেননি। পাঁচ বছর আগেই বিয়ে করিয়েছেন ছোটভাইকে। ছোট ভাইয়ের স্ত্রী কামনা নিজের মত করে সংসার গুছিয়েছেন। ডাক্তার বাবু দেখলেন, গ্রামের এক চাষি নিজের ভাগ্নিকে টাকার বিনিময়ে তুলে দিচ্ছেন ভিনদেশী কুৎসিত এক বরের হাতে। ডাক্তার বাবু মেয়েটিকে রক্ষা করেন।

শ্রীমতি নামের এই মেয়েটিকে তিনি স্ত্রীর মর্যাদা দিয়ে বাড়ি আনেন। আর এতেই মাথা খারাপ হয়ে যায় কামনার। নানা ষড়যন্ত্র করে কামনা গ্রামের সহজ-সরল নিরীহ মেয়েটিকে প্রতিষ্ঠিত করেন ‘ডাইনি বধূ’ হিসেবে। সংসার জীবনের এমন চিরায়িত ঘটনা নিয়ে রচিত ভারতের শক্তিপদ সিংহের যাত্রাপালা ‘ডাইনি বধূ’। মঙ্গলবার রাতে রাজশাহী জেলা শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে প্রায় আড়াই ঘণ্টার এই যাত্রাপালাটি মঞ্চস্থ হয়েছে।

যাত্রাপালাটি পরিবেশনা করে রাজশাহীর বাগমারার ‘সৌখিন যাত্রা গোষ্ঠী’। বিনাটিকিটে এই যাত্রা উপভোগ করতে বাগমারা ছাড়াও আশপাশের উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের দর্শকেরা শিল্পকলা একাডেমিতে আসেন। ছিলেন শহুরে দর্শকেরাও। মিলনায়তনভরা মানুষের সামনেই পুরনো ধাচে যাত্রাপালাটি মঞ্চায়ন হয়েছে। যাত্রা দেখতে দেখতে কেউ কেউ আবেগাপ্লুতও হয়েছেন।

যাত্রাপালাটির নাট্যরূপ দেন আইনজীবী মোজাহারুল ইসলাম। পরিচালনায় ছিলেন এমএ কাশেম। অভিনয় করেন মকবুল হোসেন, করিম মেম্বার, মোজাম্মেল হক, রুবি, সবিতা, টুম্পা, মজিবুর রহমান, অজিত দাস, আশিষ কুমার রতন, আসগর আলী খান, লুৎফর রহমান, ফজের আলী, সামসুল হক প্রমুখ। সার্বিক তত্বাবধানে ছিলেন খাইরুল আলম বাবলু।

পালা শুরুর আগে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ বেতারের রাজশাহী কেন্দ্রের আঞ্চলিক পরিচালক হাসান আখতার। সভাপতিত্ব করেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্যকলা বিভাগের সাবেক সভাপতি ড. রহমান রাজু। বিশেষ অতিথি ছিলেন রাজশাহী সরকারি সিটি কলেজের সহকারী অধ্যাপক ড. আজিজুর রহমান দীপু, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা কালচারাল অফিসার ফারুকুর রহমান ফয়সাল ও নেসকো কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম।