ঢাকা | জুলাই ২২, ২০২৪ - ১০:২০ অপরাহ্ন

মুকুলের মৌ-মৌ গন্ধে পোরশার আম বাগান

  • আপডেট: Sunday, March 13, 2022 - 10:27 pm

এম রইচ উদ্দিন, পোরশা থেকে: বরেন্দ্র অঞ্চল খ্যাত নওগাঁর পোরশা উপজেলার সারি-সারি আম বাগান গুলোতে এখন মুকুলের মৌ-মৌ গন্ধ। আম গাছের ডালে-ডালে দেখা যাচ্ছে শুধু মুকুল আর মুকুল। গাছগুলো ভরে গেছে মুকুলে মুকুলে। আম গাছ গুলোতে শোভা পাচ্ছে সোনালী মুকুলের আভা।

মুকুলের ভারে আম গাছ গুলির প্রতিটি ডাল যেন নুয়ে পড়ার উপক্রম। মুকুলের মাঝে মৌমাছিদের আনাগোনা দেখে মনে হচ্ছে এগুলোই এদের মধু আহরণের একমাত্র ক্ষেত্র। এত মুকুলের সমারোহ দেখে বাগান মালিক ও আম চাষীদের প্রাণ যেন ভরে উঠেছে। গাছের ডালে-ডালে এত মুকুল দেখে সোনালী স্বপ্নে বিভোর এ অঞ্চলের আমচাষী আর বাগান মালিকরা। আবহাওয়া অনুকুলে থাকলে এবছর আমের বাম্পার ফলন হবে বলে আশা করছেন তারা।

জানা গেছে, এবছর উপজেলায় প্রায় ১০ হাজার ৫৫০ হেক্টর জমিতে আম চাষ হচ্ছে। সংশ্লিষ্টরা জানান, গোটা নওগাঁ জেলার চাইতে বেশি আম চাষ হচ্ছে এ উপজেলায়। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ সঞ্জয় কুমার সরকার জানান, উপজেলায় প্রতি বছর আমের বাগান বেড়েই চলছে। ফলে উৎপাদন লক্ষমাত্রাও বেড়ে যাচ্ছে। গতবছরের তুলনায় এবছর মুকুলের পরিমান বেশী। চলতি মৌসুমে আমের বাম্পার ফলন হবে বলে তিনি আশা করছেন। এখানকার উৎপাদিত আম অনেক সুস্বাদু হওয়ায় দেশের সকল বাজারে চাহিদা বেশী। শেষ পর্যন্ত আবহাওয়া ভাল থাকলে চলতি মৌসুমে এ অঞ্চলে আমের উৎপাদন লক্ষমাত্রায় পৌঁছা যাবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

তিনি আরও জানান, যে সকল গাছের মুকুল বের হয়ে কুড়ি ফুঁটে গেছে কোন কারনে যদি আকাশের বৃষ্টি বা ঝড় হয় তাহলে ওই সকল মুকুলের সামান্য কিছু ক্ষতি হতে পারে। এক্ষেত্রে চাষিদের তিনি ভাল ব্রান্ডের ছত্রাকনাশক ঔষুধ স্প্রে করার পরামর্শ প্রদান করছেন বলে জানান।