স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহীর পুঠিয়া উপজেলায় গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে দগ্ধ হয়ে সালমা খাতুন (৪২) নামে এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। গতকাল বুধবার ভোরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।
নিহত সালমা খাতুন বেলপুকুর ইউনিয়ন পরিষদের সংরক্ষিত নারী ওয়ার্ডের সাবেক সদস্য। তিনি কিসমত জামিরা গ্রামের কামরুল ইসলামের স্ত্রী এবং জামিরা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক।
এলাকাবাসী জানান, ৭ অক্টোবর রাত একটার দিকে শয়ন কক্ষে রাখা একটি গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরিত হয়। সঙ্গে সঙ্গে স্বামী কামরুল এবং তার স্ত্রী সালমার শরীরে আগুন লেগে যায়। পরে সংকটাপন্ন অবস্থায় তাদের রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়। তবে সালমার শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে তাকে ঢামেক হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে স্থানান্তর করা হয়। সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় সালমা খাতুন মারা গেলেন।
পুঠিয়ার বেলপুকুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মোস্তফা জানান, সালমা খাতুন চিকিৎসাধীন অবস্থায় ঢাকায় মারা গেছেন। এ নিয়ে একটি অপমৃত্যুর মামলা করা হয়েছে। সালমার স্বামী কামরুল বর্তমানে সুস্থ। রামেক হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে বর্তমানে তিনি বাড়িতে অবস্থান করছেন।