বগুড়া প্রতিনিধি: বগুড়ার গাবতলীর পল্লিতে মহসিন আলী (৬০) নামের এক কৃষকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার সকালে গাবতলী উপজেলার মহিষাবাথান ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন উদখালি খাল থেকে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ । তাকে হত্যার পর তার লাশ খালে ফেলে দেয়া হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে । নিহত মহসিন আলী মহিষাবান গ্রামের মৃত ময়েজ উদ্দিনের ছেলে।
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, নিহত মহসিন আলী ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন শ্যালোমেশিন ঘরে রাতে ঘুমাতেন। বৃহস্পতিবার রাতে বাড়ি থেকে খাওয়া দাওয়া শেষে শ্যালোমেশিন ঘরে যান। পরদিন শুক্রবার সকালে অনেক বেলা হলেও তিনি বাড়ি ফেরেননি। পরে তার খোঁজে পরিবারের লোকজন শ্যালোমেশিন ঘরে গিয়ে দেখে সেখানে তার বিছানাপত্র তছনছ করা। পরে আশেপাশে খোঁজাখুঁজির এক পর্যায়ে ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন উদখালি খালের পাড়ে তার লাশ পরে থাকতে দেখা যায়। পরে পুলিশে খবর দেয়া হলে তারা ঘটনাস্থলে এসে নিহতের লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠায়।
নিহতের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরির সময় নিহতের মুখ ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে দুর্বৃত্তরা রাতের যে কোনো সময় কৃষক মহসিনকে হত্যার পর তার লাশ খালের পাড়ে ফেলে গেছে। এ ঘটনায় গাবতলী থানায় একটি হত্যা মামলার প্রক্রিয়া চলছিল।