গোদাগাড়ী প্রতিনিধি: রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে ১০ম শ্রেণির এক ছাত্রী (১৬) ধর্ষিত হয়েছে। অভিযোগে যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃত যুবকের নাম মুরাদ হোসেন (১৮)।
মঙ্গলবার ধর্ষিতছাত্রীর মা গোদাগাড়ী মডেল থানায় একটি অভিযোগ করলে ওইদিন দুপুরে তার নিজ এলাকা তাকে গ্রেফতার করা হয়। সে উপজেলার বাসুদেবপুর ইউনিয়নের কাশিমপুর গ্রামের দেলখোশ আলীর ছেলে।
পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ওই স্কুলছাত্রীর সাথে দেড় বছর যাবত প্রেমের সর্ম্পক গড়ে তুলে মুরাদ হোসেন। এক পর্যায়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ছাত্রীকে কয়েকবার বিভিন্ন জায়গায় নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে। পরে ওই ছাত্রী তার নানার বাড়িতে এসে ধর্ষণের বিষয়টি স্বজনদের জানায়। গোদাগাড়ী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহাঙ্গীর আলম বলেন, দশম শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে মঙ্গলবার রাতে তার মা বাদি হয়ে মুরাদ হোসেনকে আসামি করে থানায় মামলা করেছেন। তারপরই অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত মুরাদকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য ওই কিশোরীকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) পাঠানো হয়েছে। মঙ্গলবার বিকালে আদালতের মাধ্যমে অভিযুক্ত মুরাদ হোসেনকে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।