সোনালী ডেস্ক: রাজশাহীর দুর্গাপুরে এক গৃহবধূ, নাটোরের বড়াইগ্রামে এক যুবক ও সিরাজগঞ্জের উলস্নাপাড়ায় এক কলেজছাত্র আত্মহত্যা করেছেন।
দুর্গাপুর প্রতিনিধি জানান, রাজশাহীর দুর্গাপুরে কাকলী রাণী (৩০) নামের গৃহবধূ গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। ওই ঘটনায় কাকলীর স্বামী নুকুল চন্দ্রকে থানার পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে। মঙ্গলবার সকালে উপজেলার নান্দিগ্রামে এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে মর্গে প্রেরণ করেছে। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, কিছু দিন থেকে কাকলীর সাথে তার স্বামীর দ্বন্দ্ব চলছিল। মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে বাড়ির সবার অজানেত্ম কাকলী নিজঘরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন। থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) খুরশীদা বানু কনা বলেন, ওই ঘটনায় আত্মহত্যা প্রচারণার অভিযোগে থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে রামেক হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেছে। কাকলীর স্বামী নুকুলকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বুধবার সকালে তাকে জেলহাজাতে প্রেরণ করা হয়েছে।
বড়াইগ্রাম (নাটোর) প্রতিনিধি জানান, নাটোরের বড়াইগ্রামে আমগাছের সঙ্গে গলায় দড়ি দিয়ে ফাঁস নিয়ে শাহীদুল ইসলাম রান্টু (২৬) নামে এক যুবক আত্মহত্যা করেছেন। সোমবার রাতে বড়াইগ্রাম পৌরসভার মৌখাড়া বাদামতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত রান্টু বাদামতলা এলাকার আব্দুর রহিমের ছেলে। স্থানীয়রা জানান, রান্টু বেশ কিছুদিন যাবৎ কিছুটা মানসিক সমস্যায় ভুগছিলেন। সোমবার রাত ৮টার দিকে তিনি বাইরে যাবার কথা বলে বের হন। বেশ কিছু সময় পরেও ফিরে না আসায় খোঁজাখুঁজির এক পর্যায়ে বাড়ির অদূরে একটি আমগাছের সঙ্গে তাকে ঝুলনত্ম অবস্থায় পাওয়া যায়। পরে তাকে উদ্ধার করে বড়াইগ্রাম হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। বড়াইগ্রাম থানার ওসি দিলীপ কুমার দাস জানান, মঙ্গলবার সকালে নিহতের লাশের পোস্টমর্টেম করা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়েছে।
সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি জানান, বুধবার জেলার উলস্নাপাড়ার চর মোহনপুর গ্রাম থেকে পুলিশ রবিউল ইসলাম সানি নামের এক কলেজছাত্রের লাশ উদ্ধার করেছে। ওই গ্রামের নাসির উদ্দীনের ছেলে সানি তার শোবার ঘরের ধরনার সঙ্গে দড়ি ঝুলিয়ে ফাঁসিতে আত্মহত্যা করেছে বলে জানিয়েছে সানির পরিবার। সানি উলস্নাপাড়ার জাতীয় তরুণ সংঘ বড়পাঙ্গাসী ডিগ্রি কলেজের ডিগ্রি ৩য় বর্ষের ছাত্র। উলস্নাপাড়া মডেল থানার উপ-পরিদর্শক ইব্রাহীম হোসেন জানান, সানির শোবার ঘরে ভেতর থেকে দরজা জানাল বন্ধ ছিল। পুলিশ খবর পেয়ে দুপুরে ওই ঘরের দরজা ভেঙে ঝুলনত্ম অবস্থায় থাকা সানির লাশ উদ্ধার করে ময়না তদনেত্মর জন্য সিরাজগঞ্জ বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। এ ব্যাপারে উলস্নাপাড়া থানায় একটি ইউডি মামলা হয়েছে।