সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি: সিরাজগঞ্জ সদরে এক বৃদ্ধাকে কুড়াল দিয়ে কুপিয়ে হত্যার পর থানায় গিয়ে পুলিশের কাছে ধরা দিয়েছে তার নাতি।
রোববার রাতে সদর উপজেলার শিয়ালকোল ইউনিয়নের ড়্গুদ্র শিয়ালকোল গ্রামে ওই হত্যাকা- ঘটে বলে সদর থানার পরিদর্শক (তদনত্ম) রফিকুল ইসলাম জানান। নিহত বৃদ্ধা ওয়াজেদা বেগম ওই গ্রামের আবদুস সাত্তারের স্ত্রী। থানায় আত্মসমর্পণ করা সিয়াম (২০) তার বড় মেয়ের ছেলে। ওই ইউনিয়নের ফুলবাড়ি গ্রামে বাবার বাড়িতে থাকতেন সিয়াম। বেকার হলেও সমপ্রতি তিনি বিয়ে করেছেন। প্রায়ই তিনি নানির কাছ থেকে টাকা নিতেন বলে পুলিশকে জানিয়েছেন স্বজনরা।
পুলিশ পরিদর্শক রফিকুল বলেন, রোববার সন্ধ্যায় ড়্গুদ্র শিয়ালকোলে নানির বাড়ি গিয়ে আবারও টাকা চায় সিয়াম। কিনত্মু টাকা দিতে রাজি না হওয়ায় ড়্গিপ্ত হয়ে সে নানিকে কুড়াল দিয়ে কুপিয়ে সেখান থেকে পালিয়ে যায়। প্রতিবেশিরা ওয়াজেদা বেগমকে রক্তাক্ত অবস্থায় সিরাজগঞ্জ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত সাড়ে ৯টার দিকে মারা যান ওই বৃদ্ধা।
এদিকে রাত ১১টার দিকে নিজেই থানায় গিয়ে আত্মসমর্পণ করেন সিয়াম। পরিদর্শক রফিকুল বলেন, তাকে থানা হেফাজতে রাখা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলা করার প্রসত্মুতি চলছে।