স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে সেবার মান আরও বৃদ্ধি করতে সংশিস্নষ্টদের নির্দেশনা দিয়েছেন রাজশাহী-২ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা। তিনি বলেছেন, চিকিৎসা সেবা প্রাপ্তিতে রোগীদের যেন কোনো হয়রানি না হয় সে জন্য সবাইকে সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে। সবাই মিলে হাসপাতাল থেকে সব ধরনের অব্যবস’াপনা দূর করতে হবে।
গতকাল মঙ্গলবার সকালে হাসপাতাল পরিচালনা পর্ষদের সভায় তিনি একথা বলেন। হাসপাতাল পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি ফজলে হোসেন বাদশার সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। বাদশা বলেন, এই হাসপাতালে উত্তরাঞ্চলের অনেক দূর-দূরানত্ম থেকে ভালো চিকিৎসার জন্য মানুষ ছুটে আসে। তাই চিকিৎসা সেবায় পিছিয়ে থাকলে চলবে না। যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে এগিয়ে যেতে হবে।
বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা বলেন, তিনি হাসপাতাল পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি হওয়ার পর চিকিৎসার জন্য নতুন নতুন যন্ত্রপাতি স’াপন করা হয়েছে। হাসপাতালটিতে নতুন ভবন করা হয়েছে। আরও যেসব সংকট রয়েছে সেগুলো দূর করার জন্য তিনি আনত্মরিকভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। এ জন্য তিনি সংশিস্নষ্ট সবার সহযোগিতা কামনা করেন।
সম্প্রতি হাসপাতালে ঠিকাদারের বিরম্নদ্ধে রোগীদের নিম্নমানের কলা-পাউরম্নটি সরবরাহের অভিযোগ ওঠে। এ নিয়ে তিন সদস্য বিশিষ্ট একটি তদনত্ম কমিটি গঠন করা হয়েছে। বুধবার এই কমিটির তদনত্ম প্রতিবেদন দেয়ার কথা রয়েছে। প্রতিবেদন অনুযায়ী এ ব্যাপারে দ্রম্নত যথাযথ ব্যবস’া গ্রহণের জন্য হাসপাতালের পরিচালককে নির্দেশ দেন সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা।
সভায় হাসপাতাল পরিচালনা কমিটির অন্যতম সদস্য শাহীন আক্তার রেনী, রাজশাহী সিটি করপোরেশনের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু, হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জামিলুর রহমানসহ অন্য সদস্যরা উপসি’ত ছিলেন।