ভবানীগঞ্জ প্রতিনিধি: রাজশাহী জেলা প্রশাসকের ফোন নম্বর ক্লোন করে বাগমারা উপজেলা চেয়ারম্যানের কাছে লড়্গাধিক টাকা দাবির ঘটনা ঘটেছে। অভিনব কায়দায় ডিসির ফোন নম্বর ক্লোন করে টিআর এবং কাবিখা দেয়ার নামে এক লাখ টাকা দাবি করে অজ্ঞাত এক প্রতারক।
রোববার দুপুর ১২টার দিকে বাগমারা উপজেলা চেয়ারম্যান অনিল কুমার সরকারের ব্যবহৃত ব্যক্তিগত মোবাইলে ফোন আসে ০১৭১৩-২০০৫৬৯ নম্বর থেকে। সেই নম্বর থেকে ডিসি পরিচয় দিয়ে তার একটি ব্যক্তিগত নম্বর দেন বিসত্মারিত কথা বলার জন্য। পরে ০১৮৩০-৬৮৫০৬৮ নম্বরে ফোন করেন উপজেলা চেয়ারম্যান অনিল কুমার সরকার।
তিনি জানান, ডিসির পরিচয় দিয়ে যে কথাগুলো বলা হয় তা হল, আপনার ভাগ্য ভালো। আপনার জন্য একটা সুখবর আছে। আপনি কি চান টিআর না কাবিখা। আপনি যেটা চাইবেন সেটাই পাবেন। তবে এর জন্য আপনাকে একটা তাড়াতাড়ি প্রকল্প দিতে হবে। সেই সাথে এর জন্য বিকাশ নম্বরে ১ লাখ টাকা পাঠাতে হবে আপনাকে। বিষয়টি সাথে সাথে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে জানান উপজেলা চেয়ারম্যান। এসব কথা শোনার পর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাকিউল ইসলাম বিষয়টি রাজশাহী জেলা প্রশাসক হামিদুল হককে জানান।
উপজেলা চেয়ারম্যান অনিল কুমার সরকার বলেন, যারা ডিসির ফোন নম্বর ক্লোন করে এরকম কর্মকা- চালাচ্ছে তাদের বিরুদ্ধে দ্রম্নত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হোক। এই চক্রের ফাঁদে পড়ে অনেকেই সরল বিশ্বাসে বিকাশে টাকা দিতে বাধ্য হবে। তাই কেউ যেন এই চক্রের খপ্পরে না পড়ে সে ব্যাপারে তদনত্ম করে আইনগত ব্যবস্থা নিতে তিনি জোর দাবি জানান।