এফএনএস: রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমার সরকারের ওপর আনত্মর্জাতিক চাপ আগের যেকোনো সময়ের থেকে বেশি বলে দাবি করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, মিয়ানমারকে বন্ধুহীন ভাবার কারণ নেই। তাদেরও বন্ধু আছে। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে বাংলাদেশ যুব মহিলা লীগ আয়োজিত ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
ওবায়দুল কাদের বলেন, মিয়ানমার সরকার রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে চায় না। কেন চায় না, তার একটা ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপট রয়েছে। এটা নিয়ে যারা কাজ করে তারা এটা ভালো জানে। মিয়ানমার সরকারের ওপর প্রেসার আগের থেকে অনেক বেড়েছে। তাই ভেতরে যাই থাক এখন তারা এদের ফিরিয়ে নেয়ার মুখে কথা বলছে, এটা শেখ হাসিনার সরকারের সফলতা। বিএনপি সম্পর্কে ওবায়দুল কাদের বলেন, নিজেরা রাজনীতিতে সঙ্কটের ফাঁদে পড়ে এখন আবোল তাবোল বকছে।
তিনি অভিযোগ করেন, বিএনপি নেত্রী দেড় বছর থেকে দুর্নীতি মামলায় দোষী সাব্যসত্ম হয়ে কারাগারে রয়েছেন। কিন’ বিএনপি নেতারা দেড় মিনিটের জন্যও আন্দোলন করতে পারেনি। তারা সব কিছুতে ব্যর্থ হয়েছে।
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ১৫ ও ২১ আগস্টে বিএনপির সংশিস্নষ্টতা প্রমাণের অপেক্ষা রাখে না। আদালতে, জনতার আদালতে এটা এখন প্রমাণিত। আগস্ট মাসে এদের মাথা খারাপ হয়ে যায়।
আওয়ামী লীগের এ নেতা বলেন, জিয়াউর রহমান যদি ১৫ আগস্টের সাথে জড়িত নাই হতেন তিনি খুনিদের বিচারের পথ কেন রম্নদ্ধ করেছিলেন?
তিনি বলেন, এখানেই আপনাদের সংশিস্নষ্টতার প্রত্যক্ষ প্রমাণ। এ কথা আপনারা কখনো স্বীকার করেন না। সেদিনে হত্যাকা-ের মাস্টারমাইন্ড জিয়াউর রহমান। আর ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার মাস্টার মাইন্ড তারেক রহমান, জিয়াউর রহমানের সনত্মান।