এফএনএস: রাষ্ট্রীয় সোনালী, রূপালী, জনতা ও অগ্রণী এ চার ব্যাংকে আর রিফাইন্যান্সিং (পুনঃঅর্থায়ন) করা হবে না। বাজেটেও এসব ব্যাংকের জন্য বরাদ্দ থাকবে না। এসব ব্যাংককে নিজের টাকায় চলতে হবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুসত্মফা কামাল।
গতকাল রোববার শেরে বাংলানগর এনইসি মিলনায়তনে রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন বাণিজ্যিক বিশেষায়িত ব্যাংকগুলোর চেয়ারম্যান এবং ব্যবস্থাপনা পরিচালকদের সঙ্গে আলোচনা শেষে মন্ত্রী এ তথ্য জানান। মন্ত্রী বলেন, এবার বাজেটে ব্যাংকগুলোর জন্য বরাদ্দ আছে। তবে সামনে আর বরাদ্দ রাখা হবে না। জনগণকে সেবা দিয়ে আয় করেই ব্যাংকগুলোকে চলতে হবে।
এদিকে, রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন বাণিজ্যিক ও বিশেষায়িত ব্যাংকগুলোর চেয়ারম্যান ও সিইও/বি্যবস্থাপনা পরিচালকদের সঙ্গে আলোচনার শুরম্নতে বলেন, আমরা চারটি ব্যাংককে আমন্ত্রণ জানিয়েছি। তারা অনেক বড়। আমাদের বৃহত্তর চারটি ব্যাংক তারা। তাদের যে এঙারসাইজ, তাদের যে অবস্থান ব্যাংক খাতে, এই চারটি ব্যাংক চাইলেই সার্বিকভাবে আমাদের ব্যাংক খাতকে বেগবান রাখতে পারে। মুসত্মফা কামাল বলেন, আমরা আলোচনায় সুনির্দিষ্টভাবে কিছু রাখিনি। আজ আমরা একে অপরকে জানব, তাদের জন্য আমাদের শুভ কামনা থাকবে সবসময়। তারা আমাদের একটি কর্মপরিকল্পনা দেবেন, কীভাবে এই ব্যাংক খাতকে আরও শক্তিশালী করা যায়। আরও বেগবান করবেন। এ বিষয়ে আজকে তারা আমাদের অবহিত করবেন। এজন্য আজকে আমরা এখানে বসেছি। এ সময় নিমন্ত্রিত ব্যাংকের চেয়ারম্যান ও সিইও/বি্যবস্থাপনা পরিচালকরা উপস্থিত ছিলেন।