সোনালী ডেস্ক: বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে নাটোরের বড়াইগ্রামে কলেজছাত্র ও বগুড়ার নন্দীগ্রামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে।
নাটোর ও বড়াইগ্রাম প্রতিনিধি জানান, নাটোরের বড়াইগ্রামে নানার বাড়িতে বেড়াতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মামুন হোসেন রোকন (১৯) নামে এক কলেজছাত্রের মৃত্যু হয়েছে। বুধবার রাত ৮টার দিকে উপজেলার বনপাড়া পৌরসভার কালিকাপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত রোকন পাশের কুমরম্নল গ্রামের আনোয়ার হোসেন তরফদারের মেজো ছেলে ও নাটোর পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের ছাত্র। স’ানীয় ইউপি সদস্য ফেরদৌস উল আলম জানান, বুধবার রাতে রোকন কালিকাপুরে তার নানার বাড়িতে যায়। সেখানে একটি ঘরের ত্রম্নটিপূর্ণ বৈদ্যুতিক লাইন মেরামতের সময় হঠাৎ রোকন বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়। পরে স্বজনেরা তাকে উদ্ধার করে দ্রম্নত স’ানীয় ক্লিনিকে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
বগুড়া প্রতিনিধি জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরে বগুড়ার নন্দীগ্রাম উপজেলা সদরের কচুগাড়ী নামক স’ানে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে আবদুল বারিক (৩২) নামের এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। মাঠে গভীর নলকূপের বিদ্যুতের সুইচ দিতে গিয়ে এ ঘটনা ঘটে। মৃত বারিক পৌরসভা সদরের কচুগাড়ী মহলস্নার আবদুর রউফের ছেলে। স’ানীয়রা জানায়, বৃহস্পতিবার বেলা দেড়টার দিকে এলাকার কচুগাড়ী মাঠে আবদুল বারিক জমিতে পানি দিতে যান। এ সময় গভীর নলকূপের বিদ্যুতের সুইচ দিতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে ঘটনারস’লেই তার মৃত্যু হয়।