বড়াইগ্রাম (নাটোর) প্রতিনিধি: বড়াইগ্রামে সাড়ে ৪ বছর বয়সী এক শিশুকে ধর্ষণ করেছে হোসেন আলী (৫০) নামে এক ব্যক্তি। ধর্ষক হোসেন আলী উপজেলার জোয়াড়ী ইউনিয়নের আটঘরিয়া গ্রামের মৃত লুলু সরকারের ছেলে। এ ঘটনায় বুধবার রাতে ধর্ষিতা শিশুর পিতা বাদি হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।
এদিকে ধর্ষণের ঘটনাটি গ্রাম প্রধানদের জানানোর কারণে হোসেন আলীর শ্যালক দেলোয়ার হোসেন শিশুটির বাবাকে মারপিট করে ও গলায় ফাঁস লাগিয়ে হত্যার চেষ্টা করেছে বলে অভিযোগে জানা গেছে। অভিযোগে বলা হয়েছে, হোসেন আলী বিয়ের পর থেকেই আটঘরিয়া গ্রামে শ্বশুরবাড়িতে ঘরজামাই হিসেবে বসবাস করছিলেন। মঙ্গলবার খেলনা কিনে দেয়ার কথা বলে শিশুটিকে সে কোলে করে তার বাড়িতে নিয়ে যায়। পরে তাকে মুখ চেপে ধর্ষণ করে। এক পর্যায়ে শিশুটির মা শিশুটিকে খুুঁজতে গেলে হোসেনের বাড়ির পাশে তাকে পায়। পরে ৯৯৯-এ কল করে জানালে বড়াইগ্রাম থানার ওসি (তদনত্ম) ঘটনাস’লে গিয়ে এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস’া গ্রহণ করেন।
এ ব্যাপারে ওসি (তদনত্ম) সুমন হোসেন জানান, শিশুটির মেডিকেল চেক আপ সম্পন্ন করা হয়েছে। আসামিকে আটকের চেষ্টা চলছে।