সোনালী ডেস্ক: বিদ্যুৎ স্পৃষ্ট হয়ে রাজশাহীর বাগমারায় পলিস্নবিদ্যুতের এক কর্মচারী ও নাটোরের বড়াইগ্রামে স্কুলছাত্রের মৃত্যু হয়েছে।
বাগমারা ও ভবানীগঞ্জ প্রতিনিধি জানান, বাগমারায় পোলে উঠে নতুন বিদ্যুৎ সংযোগ দিতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে নাটোর পলিস্ন বিদ্যুৎ সমিতি-১ এর এক কর্মচারির মৃত্যু হয়েছে। তার নাম রিয়াজ উদ্দিন শেখ (৫২)। বাড়ি বাগমারা গ্রামে। তার বাবার নাম মৃত ফয়েজ উদ্দিন শেখ। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে নাটোর পলিস্ন বিদ্যুৎ সমিতি-১ এর কর্মচারি রিয়াজ উদ্দিন শেখ বাসুপাড়া ইউনিয়নের গোপালপুর গ্রামের হঠাৎপাড়ায় নতুন বিদ্যুৎ লাইনের সংযোগ দেয়ার জন্য পোলে উঠেন। এ সময় অসাবধানতাবশত বিদ্যুতের তারে জড়িয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে পোলের ওপরই তার মৃত্যু হয়।
থানার ওসি আতাউর রহমান বলেন, সকালে বিদ্যুৎ সংযোগ দিতে গিয়ে এ দুর্ঘটনা ঘটে। বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে পোলের ওপরেই মারা যান রিয়াজ উদ্দিন। তার লাশ সেখানেই ঝুলছিল। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে। আইনি প্রক্রিয়া শেষে লাশ মৃতের পরিবারের কাছে হসত্মানত্মর করা হবে বলেও জানান এ পুলিশ কর্মকর্তা।
বড়াইগ্রাম (নাটোর) প্রতিনিধি জানান, বড়াইগ্রামে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মেহেদী হাসান (১৪) নামে এক স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে। শুক্রবার সকালে বড়াইগ্রাম পৌরসভার দোকুল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত মেহেদি হাসান পৌরসভার লড়্গীকোল মহলস্নার ঈমান হোসেনের ছেলে ও বড়াইগ্রাম পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্র।
স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর জয়নাল আবেদীন চান্দু জানান, সকালে মেহেদী বড়াইগ্রামের দোকুলে তার নানার বাড়িতে বেড়াতে যায়। সেখানে ত্রুটিপূর্ণ বৈদ্যুতিক লাইন থেকে বিদ্যুতায়িত টিনের বেড়ায় হাত দিলে সে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়। পরে স্বজনরা চিকিৎসার জন্য দ্রম্নত বড়াইগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নঙে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।