সোনালী ডেস্ক: নওগাঁর নিয়ামতপুর ও পাবনার বেড়ায় বজ্রপাতে ২ ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। বেড়ায় বজ্রপাতের সময় নৌকা থেকে নদীতে পড়ে নিখোঁজ রয়েছেন।
নিয়ামতপুর (নওগাঁ) প্রতিনিধি জানান, নিয়ামতপুরে বজ্রপাতে এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। নিহত নূর মোহাম্মদ (৫০) উপজেলার ভাবিচা ইউনিয়নের জুগিবাড়ী গ্রামের বাসিন্দা। তার বাবার নাম মৃত সাইফুল ইসলাম। বজ্রপাতে মৃত্যুর এ ঘটনাটি ঘটে রোববার সন্ধ্যায় যুগিবাড়ী গ্রামে। নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, ঘটনার সময় নূর মোহাম্মদ আমনের মাঠে কাজ করছিলেন। এসময় হঠাৎ বজ্রপাতের ঘটনা ঘটে এবং ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।
পাবনা প্রতিনিধি জানান, পাবনার বেড়ায় যমুনা নদীতে নৌকায় বজ্রপাতে এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় অপর একজন নদীতে পড়ে নিখোঁজ হয়েছে। নিহত ঈমান আলী (৫০) রাজশাহীর পুঠিয়া উপজেলার মৃত রফিকুল ইসলামের ছেলে। আর নিখোঁজ সাইফুল ইসলাম (৩০) নাটোরের নলডাঙ্গা উপজেলার মৃত ছোলেমান আলীর ছেলে। স্থানীয়রা জানান, শ্যালোইঞ্জিন চালিত একটি নৌকা রাজশাহী থেকে আম ও কলা নিয়ে ঢাকার একটি আড়তে নামিয়ে দিয়ে আবার রাজশাহী ফিরে যাচ্ছিল। রোববার সন্ধ্যে ৭টার দিকে নৌকাটি নাকালিয়া বাজারের সামনে মাঝ যমুনায় পৌঁছালে বৃষ্টির সাথে বজ্রপাত হয়। এতে নৌকায় থাকা ঈমান আলী গুরম্নতর আহত হন এবং সাইফুল ইসলাম যমুনা নদীতে পড়ে নিখোঁজ হন। স্থানীয়রা ঈমান আলীকে উদ্ধার করে বেড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নঙে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। নিখোঁজ ব্যাক্তির সন্ধানে স্থানীয়রা নদীতে উদ্ধার অভিযান চালাচ্ছে। তবে নদীতে প্রচন্ড স্রোতের কারণে উদ্ধার কাজ ব্যাহত হচ্ছে। বেড়া ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার সোহেল আহম্মেদ জানান, নিখোঁজ ব্যক্তির ব্যাপারে খোঁজ নেয়া হচ্ছে।