ম্যাচ বাঁচাতে পারবেন লিটন-মেহেদীরা?

  • 1
    Share

অনলাইন ডেস্ক: পাল্লেকেলেতে ৪৩৭ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে দুই লঙ্কান স্পিনার জয়াবিক্রমা এবং মেন্ডিসের ঘূর্ণিতেই কোণঠাসা বাংলাদেশ। ১৭৭ রানে ৫ উইকেট হারানো বাংলাদেশের এখন ভরসা লিটন দাস এবং মেহেদী হাসান মিরাজ। দলে আর কোনো জাত ব্যাটসম্যান না থাকায় ম্যাচ বাঁচাতে হলে তাদেরকেই হাল ধরতে হবে। পঞ্চমদিনের খেলায় জয়ের জন্য বাংলাদেশের প্রয়োজন ২৬০ রান। আর জিততে হলে লঙ্কানদের নিতে হবে বাংলাদেশের আরো ৫টি উইকেট।

বাংলাদেশকে ফলোঅনে ফেললেও দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে আসে স্বাগতিক শ্রীলঙ্কাই। ২ উইকেটে তৃতীয়দিন শেষে করে চতুর্থদিনের খেলায় আজ(রবিবার) ফের ব্যাটিংয়ে নামেন আগেরদিনের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান।

ব্যাট হাতে দ্রুত রান তুলতে ব্যস্ত হয়ে পড়েন লঙ্কানরা। দ্রুত রান করার পাশাপাশি ক্ষণে উইকেটেও হারিয়েছে শ্রীলঙ্কা। শেষ পর্যন্ত ৯ উইকেটে ১৯৪ রানে করুনারত্নেরা ইনিংস ঘোষণা করলে আগের ইনিংসের ২৪৩ রানের লিডসহ বাংলাদেশের জন্য টার্গেট দাঁড়ায় ৪৩৭ রান।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে বরাবরের মতোই ভালো সূচনা এনে দেন টাইগার ওপেনার তামিম ইকবাল। টানা পঞ্চম ইনিংসে হাফ-সেঞ্চুরির রেকর্ড গড়া হয়নি তার। আগের টেস্টে ক্রিকেটে ব্যক্তিগত ক্যারিয়ারে আগের চার ইনিংসে ফিফটির দেখা পেলেও এবার ফিরেছেন মাত্র ২৪ রানে।

দ্বিতীয় উইকেটে ব্যাট করতে আসা নাজমুল হোসেন শান্তকে নিয়ে ৪২ রানের জুটি গড়ে ফেরেন ওপেনার সাইফ হাসান। জয়াবিক্রমার বলে লাকমালের হাতে ক্যাচ দেয়ার পূর্বে ৪৬ বলে ৩৪ রান করেন তিনি। এরপর ৪৪ বলে ২৬ রান করা শান্তকে বোল্ড করেন ওই জয়াবিক্রমাই।

দলীয় অধিনায়ক মুমিনুল হক এবং উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিমের ব্যাটিংয়ে স্বস্তি পাওয়া শুরু করলে এমন সময় আউট হন দলনেতা। ৪৮ বলে ৩২ রান করে মেন্ডিসের বলে বোল্ড হন তিনি।

আগের প্রত্যেক ব্যাটসম্যান দুই অঙ্কের ঘর পারলেও হাফ-সেঞ্চুরির দেখা পাননি কেউই। কিন্তু মুশফিকের কাছে হয়তো ছোট্ট একটা ফিফটির প্রত্যাশা ছিল। কিন্তু হতাশ করেছেন তিনিও। আউট হওয়ার পূর্বে করেন ৪০ রান।

এখন বাংলাদেশ দলের ভরসার প্রতীক দুই উদীয়মান তারকা ক্রিকেটার লিটন দাস ও মেহেদী হাসান মিরাজ। দুজনই ক্রিজে অবস্থান করছেন। খেলছিলেন মাটি কামড়ে। চতুর্থদিনের তৃতীয় সেশনের খেলায় আরো দশ ওভারের মতো খেলা হতে পারত আজ। কিন্তু আলোর স্বল্পতার কারণে কিছুক্ষণ খেলা বন্ধ থাকার পর অ্যাম্পায়াররা দিনশেষ বলে ঘোষণা করেন।

এখন লিটন ১৪ রানে এবং মিরাজ ৪ রানে অপরাজিত রয়েছেন।

বৃহস্পতিবার টস জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে লাহিরু থিরিমান্নের ১৪০, দিমুথ করুনারত্নের ১১৮ রানের সুবাদে ৭ উইকেটে ৪৯৩ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করে লঙ্কানরা।

বাংলাদেশের পক্ষে সর্বোচ্চ ৪টি উইকেট নেন তাসকিন আহমেদ। এছাড়া একটি করে উইকেট পেয়েছেন মেহেদী হাসান মিরাজ, তাইজুল ইসলাম এবং শরিফুল ইসলাম।

জবাবে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে লঙ্কান স্পিনে কাবু বাংলাদেশ। তামিম ইকবালের ৯২ এবং মুমিনুল হকের ৪৯ রানের ইনিংসের সুবাদে মাত্র ২৫১ রানেই থেমেছে সফরকারীদের ইনিংস।

শ্রীলঙ্কার হয়ে সর্বোচ্চ ছয়টি উইকেট নেন জয়াবিক্রমা। এছাড়া দুটি করে উইকেট পেয়েছেন সুরাঙ্গা লাকমাল ও রমেস মেন্ডিস।

 

সোনালী/এমই

শর্টলিংকঃ