মোহনপুরে করাত মিলে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি (মোহনপুর): মোহনপুর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় করাত মিলে (স-মিলে) অভিযান চালিয়ে পাঁচ করাত মিল মালিককে লাইসেন্স না থাকায় ভ্রাম্যমাণ আদালতে ১০ হাজার টাকা করে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।
গতকাল বুধবার সহকারী কমিশনার (ভূমি) জাহিদ বিন কাশেম, বন কর্মকর্তা মুনছুর আলী, থানার এএসআই সুকদেব সঙ্গীয় ফোর্সসহ ছয়টি করাত মিলে অভিযান পরিচালনা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। জানা গেছে, উপজেলার মেডিকেল গেট এলাকায় ইউপি সদস্য ওয়াজেদ আলীর করাত মিলে অভিযান চালিয়ে লাইসেন্স ও রেজিস্টার না থাকায় ১০ হাজার টাকা, কেশরহাট বাজার এলাকার করাত মিলের মালিক আজাহারকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। অভিযানের সময় সেকেন্দার আলী নামে করাত মিলের মালিককে আটক করা হয়। পরে তার কাগজ পত্র সঠিক থাকায় তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।
অভিযানের কথা শুনে অন্য তিনটি করাত মিলের মালিক ও লোকজন পালিয়ে যাওয়ায় তাদের নাম তালিকাভুক্ত করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। তালিকাভুক্তরা হলেন, কেশরহাটের করাত মিলের মালিক আলাউদ্দিন, সাবেক পৌর কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম ও বাকি। অভিযান পরিচালনা করার সময় করাত মিলের বিভিন্ন যন্ত্রপাতি জব্দ করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। বিকেলে ভূমি অফিস কার্যালয়ে আদালত বসিয়ে তালিকাভুক্ত ৩ জন করাত মিলের মালিককে ১০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে এবং জব্দকৃত যন্ত্রপাতি ফেরত দেওয়া হয়েছে।
এ ব্যাপারে সহকারী কমিশনার (ভূমি) বলেন, করাত মিলের লাইসেন্স না থাকায় ও নবায়ন না করায় করাত মিল মালিকদের জরিমানা করা হয়েছে। আগামী ২ সপ্তাহের মধ্যে লাইসেন্স ও নবায়ন করার জন্য করাত মিল মালিকদের সময় দেওয়া হয়েছে। আবেদন না করলে তাদের বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা করা হবে। তালিকা অনুযায়ী করাত মিল মালিকদের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে।

শর্টলিংকঃ