মুক্তিযোদ্ধা হায়দার আনোয়ার খান জুনো আর নেই

অনলাইন ডেস্ক:  ১১ দফার অন্যতম রচয়িতা উনসত্তুরের গণঅভ্যুত্থানের সংগঠক বিপ্লবী ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি ও কমিউনিস্ট বিপ্লবীদের সমন্বয় কমিটির প্রতিষ্ঠাতা সদস্য, মুক্তিযুদ্ধে শিবপুরের কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা হায়দার আনোয়ার খান জুনো মারা গেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

বৃহস্পতিবার বেলা দেড়টার দিকে রাজধানীর গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তার মেয়ে অনন্যা লাবণী।

তিনি জানান, নিউমোনিয়ার মধ্যে হার্ট অ্যাটাক হওয়ায় গত ১৫ সেপ্টেম্বর রাতে ৭৬ বছর বয়সী জুনোকে ঢাকার স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে ২৪ সেপ্টেম্বর নেওয়া হয় লাইফ সাপোর্টে। পরে ২২ অক্টোবর তাকে স্কয়ার হাসপাতাল থেকে গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল।

অনন্যা লাবণী আরও বলেন, বাবার লাশ হাসপাতাল থেকে বাসায় নিয়ে যাওয়া হবে। পরে ধানমণ্ডি ৩২ নম্বরে তাকওয়া মসজিদে জানাজা হবে। আগামীকাল সকাল সাড়ে ১০টায় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের পর বনানী কবরস্থানে দাফন করা হবে।

কমিউনিস্ট নেতা হায়দার আকবর খান রনোর ছোট ভাই জুনোর জন্ম ১৯৪৪ সালের ২৯ ডিসেম্বর কলকাতায়। তাদের পৈতৃক নিবাস নড়াইলের বরাশুলা গ্রামে। ষাটের দশকে কমিউনিস্ট আন্দোলনে জড়িয়ে পড়া জুনো ছিলেন চীনপন্থি শিবিরে। ১৯৭০ সালে বিপ্লবী ছাত্র ইউনিয়ন গঠিত হলে তিনি এর সভাপতির দায়িত্ব নেন।

তিনি ১ কন্যা, ১ পুত্র ও ৩ নাতী রেখে গেছেন। তার বড় ভাই প্রখ্যাত কমিউনিস্ট নেতা সিপিবি’র প্রেসিডিয়াম সদস্য হায়দার আকবর খান রনো। তার পিতা পিডব্লিউডি’র সাবেক প্রধান প্রকৌশলী মরহুম হাতেম আলী খান। ছাত্র হিসেবে মেধাবী  হায়দার আনোয়ার খান জুনো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পদার্থ বিজ্ঞানে অনার্স ও এমএ করেন।

তিনি বাংলায় পদার্থ বিজ্ঞানের ওপরে বই ছাড়াও মুক্তিযুদ্ধ ও উনসত্তরের গণঅভ্যুত্থানের ওপর শিবপুরের রনাঙ্গণ, উনসত্তরের দিনগুলি এছাড়াও ১টি উপন্যাস লিখে গেছেন। রাজনীতি পরবর্তীকালে তিনি সাংস্কৃতিক আন্দোলনে যুক্ত ছিলেন এবং সৃজনের সভাপতি ছিলেন। তিনি টিভি চ্যানেল বাংলা ভিশনের সাথেও যুক্ত ছিলেন।

বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন ও সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা বীর মুক্তিযোদ্ধা হায়দার আনোয়ার খান জুনোর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবার এবং শিবপুরেরর মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন।

সোনালী/আরআর

 

শর্টলিংকঃ