পার্বতীপুরে মালিকানা বিরোধে ৩ লাখ টাকার গাছ কর্তন

পার্বতীপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: জমির মালিকানা বিরোধে অবসরপ্রাপ্ত এক সেনা কর্মকর্তার স্ত্রীর মালিকানাধীন জমির ৩ লৰ্যধিক টাকা মূল্যের প্রায় শতাধিক গাছ কেটে নিয়ে গেছে দুবৃর্ত্তরা। গত শুক্রবার পার্বতীপুর উপজেলার পলাশবাড়ী ইউনিয়নের ধোপাকল বালাপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
জানা গেছে, ওই গ্রমের কয়েকজন তাদের প্রতিবেশি সেনা কর্মকর্তা শাহিনুর ইসলামের স্ত্রী আমেনা খাতুনের কাছে কিছু জমি বিক্রি করেন। ওই জমি ছাড়াও ৩৫৮৬ দাগে আতিকুর ও আশিকুরদের ৩৬ শতক জমিতে শাহিনুর ইসলাম ১: ২ ভাগ হারে পরস্পরের মাঝে বণ্টন করা হবে শর্তে গাছ রোপণ করেন। ইতিমধ্যে গাছ গুলো কাটার উপযোগি হয়েছে। আতিকুর ও আশিকুর সহোদর আমেনা খাতুনের ক্রয়কৃত ৩৯ শতক জমির মধ্যে ২৪ শতক জমির মালিকানা দাবি করে গত ২১ ফের্র্বয়ারি ভাড়াটে লোকদিয়ে প্রায় ৩ লাখ টাকা মূল্যের শতাধিক গাছ জোরপূর্বক কেটে নিয়ে যায়। এর আগে ওই জমি ও গাছের মালিকানা নিয়ে দু’পৰের মধ্যে বিরোধ সৃষ্টি হলে আমেনা খাতুন গত ১০ ফের্র্বয়ারি প্রতিপৰের বিরোধে স’ায়ী নিষেধাজ্ঞা চেয়ে পার্বতীপুর সিনিয়র সহকারী জজ আদালতে মামলা দায়ের করেন। মামলার নিষ্পত্তি হওয়ার আগে আতিকুর ও আশিকুর দু’সহোদর বল প্রয়োগ করে জমি দখলের চেষ্টা করায় সেনা কর্মকর্তা ও তার পরিবারের সদস্যরা নিরাপত্তা-হীনতায় ভুগছেন বলে তারা গণমাধ্যম কর্মিদের জানান।
এ ব্যাপারে প্রতিপৰ ২ সহোদর আতিকুর ও আশিকুর বলেন, গাছ লাগানোর চুক্তি মেনে সময় মত গাছ কাটতে রাজি না হওয়ায় আমরা গাছ কেটে নিতে বাধ্য হয়েছি বলে তারা দাবী করেন।

শর্টলিংকঃ