পদ্মায় ধরা পড়ল ১৯ কেজির পাঙাশ

পদ্মায় ধরা পড়ল ১৯ কেজির পাঙাশ

অনলাইন ডেস্ক:

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতদিয়ায় পদ্মা নদীতে জেলেদের জালে ১৯ কেজি ওজনের একটি পাঙাশ মাছ ধরা পড়েছে।

আজ সোমবার ভোরের দিকে চরকর্নেশনা এলাকায় বিশু হালদারের জালে এটি ধরা পড়ে। এই মৌসুমে এত বড় পাঙাশ এটাই প্রথম বলে স্থানীয় মৎস্য ব্যবসায়ী ও আড়তদারদের দাবি।

স্থানীয় ব্যবসায়ী ও আড়তদারদের কাছ থেকে জানা গেল, মানিকগঞ্জের শিবালয় উপজেলার তেওতা এলাকার জেলে বিশু হালদার সঙ্গীদের নিয়ে গতকাল রাতে মাছ ধরতে বের হন।

আজ ভোরের দিকে জাল টানলে বড় পাঙাশ মাছটি পান তিনি। মাছটি বিক্রির জন্য নিয়ে যান দৌলতদিয়া ঘাটের বাজারে। ১৯ কেজি ওজনের পাঙাশ মাছটি কিনে নেন স্থানীয় মৎস্য ব্যবসায়ী চান্দু মোল্লা।

চান্দু মোল্লা বলেন, এক হাজার ২০০ টাকা কেজি দরে তিনি মাছটি কিনেছেন। মাছটি কিনেই তিনি দৌলতদিয়া ফেরি ঘাটে গিয়ে পানিতে ভাসিয়ে রাখেন। যোগাযোগ করতে থাকেন দূর-দূরান্তে থাকা বিভিন্ন ব্যক্তির সঙ্গে।

‘ইতিমধ্যে ঢাকার এক গাড়ি ব্যবসায়ী মাছটি কেনার আগ্রহ দেখিয়েছেন। তিনি কেজিপ্রতি ৫০ থেকে ১০০ টাকা লাভ রেখে বিক্রি করে দেবেন। এই মৌসুমে তাঁর দেখা এত বড় পাঙাশ এটাই প্রথম বলে দাবি তাঁর’ বলেন তিনি।

এটিই মৌসুমের বড় পাঙাশ বলে দাবি দৌলতদিয়া ঘাট মৎস্য ব্যবসায়ী আড়তদার সমিতির সভাপতি মো. মোহন মন্ডলের। তিনি বলেন, ‘১৯ কেজি ওজনের পাঙাশ মাছ দেখতে স্থানীয় অনেক উৎসুক মানুষ ভিড় করেন। পদ্মার বড় মাছের স্বাদ নিতে কার না ভালো লাগে?’

‘তবে এলাকার মানুষ এত বড় মাছের স্বাদ নিতে পারেন না। দৌলতদিয়া ঘাট দিয়ে যাতায়াতকারী রাজনৈতিক নেতা, শিল্পপতি, ব্যবসায়ী বা আমলারা এ ধরনের মাছ কিনে নেন।’

গোয়ালন্দ উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা রেজাউল শরীফ বলেন, বর্ষা মৌসুম শুরু হয়েছে। এখন নদীতে মাঝেমধ্যে এ ধরনের বড় আকারের মাছ ধরা পড়বে।

সোনালী সংবাদ/এইচ.এ

শর্টলিংকঃ