নতুন পাসপোর্টের আবেদন বন্ধ

সোনালী ডেস্ক: করোনাভাইরাসের মহামারীর মধ্যে নতুন পাসপোর্ট আবেদন নেয়া বন্ধ রেখেছে পাসপোর্ট ইমিগ্রেশন অধিদপ্তর। সোমবার সকাল থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হয়েছে জানিয়ে পাসপোর্ট ও ইমিগ্রেশন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল সাকিল আহমেদ বলেন, বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে আঙুলের ছাপ নেয়া এখন ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় এ সিদ্ধান্ত নিতে হয়েছে। অতি সংক্রামক নভেল করোনাভাইরাস মূলত শ্বাসতন্ত্রের সংক্রমণ ঘটায়, ছড়ায় মূলত হাঁচি-কাশি ও স্পর্শের মধ্য দিয়ে।
সাকিল আহমেদ বলেন, নতুন পাসপোর্টের আবেদনের প্রেক্ষিতে আবেদনকারীর আঙ্গুলের ছাপ নিতে হয়। বর্তমান পরিস্থিতিতে এটা অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ। তাই আমরা নতুন পাসপোর্টের আবেদন গ্রহণ বন্ধ রেখেছি। পরিস্থিতির উন্নতি হওয়ার সাথে সাথে আমরা চালু করব। তবে রি ইস্যু বা সংশোধন- অর্থাৎ যেখানে আঙুলের ছাপ প্রয়োজন নেই, সেসব ক্ষেত্রে পাসপোর্ট ইস্যুর কাজ চালু রয়েছে বলে জানান তিনি। নতুন পাসপোর্টের আবেদন নেওয়া বন্ধের সিদ্ধান্ত ঘোষণার আগেই সোমবার সকালের দিকে কিছু আবেদনকারী এসে যাওয়ায় তাদের আঙ্গুলের ছাপ নেয়া হয়। এমনিতে প্রতিদিন প্রায় ৫০০ নতুন আবেদনকারীর আঙুলের ছাপ সংগ্রহ করেন পাসপোর্ট অফিসের কর্মীরা। বর্তমানে পর্যাপ্ত পরিমাণ পাসপোর্ট বইয়ের মজুদ আছে জানিয়ে মহাপরিচালক বলেন, করোনাভাইরাস সঙ্কটের আগেই চাহিদার সব পাসপোর্ট বইয়ের চালান বাংলাদেশ পৌঁছে গেছে। বর্তমানে আন্তর্জাতিক যোগাযোগ ব্যবস্থা সীমিত হয়ে আসছে, এরপরও পাসপোর্ট বইয়ের চাহিদা থাকলে আমরা বিকল্প ব্যবস্থায় আনার চেষ্টা করব।

শর্টলিংকঃ