ট্রাম্পের অব্যাহত বাধায় মানুষের মৃত্যু হতে পারে: বাইডেন

  • 16
    Shares

অনলাইন ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এই বলে সতর্ক করেছেন যে, ডোনাল্ড ট্রাম্প তার সম্ভাব্য প্রশাসনের কাজে বাধা প্রদান অব্যাহত রাখলে ‘মানুষের মৃত্যু হতে পারে।’

ডেলাওয়ারে এক ভাষণে তিনি বলেছেন করোনাভাইরাস মহামারি মোকাবেলায় সমন্বয় দরকার। নিজের পরাজয় মানতে ট্রাম্পের অস্বীকৃতিকে ‘চরম দায়িত্বজ্ঞানহীন’ আখ্যায়িত করেছেন মিস্টার বাইডেন।

ওদিকে সাবেক ফার্স্ট লেডি মিশেল ওবামা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লিখেছেন ‘এটা কোনো খেলা নয়।’

প্রেসিডেন্ট-ইলেক্ট জো বাইডেনের সংগ্রহে এখন পর্যন্ত ৩০৬ ইলেক্টোরাল ভোট আছে; যদিও তার দরকার ছিলো ২৭০।

তবে ট্রাম্প সোমবারও টুইট করেছেন -‘আমি নির্বাচনে জিতেছি।’

গত ৩ নভেম্বরের নির্বাচন নিয়ে ট্রাম্পের নির্বাচনী শিবির থেকে একের পর এক মামলা হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের নানা রাজ্যে।

অন্যদিকে নতুন প্রেসিডেন্টের দায়িত্বভার গ্রহণ সম্পর্কিত প্রক্রিয়া যে প্রতিষ্ঠান করে থাকে সেই দি জেনারেল সার্ভিস এডমিনিস্ট্রেশন (জিএসএ) এখনো জো বাইডেন ও কমলা হ্যারিসের জয়কে আনুষ্ঠানিক স্বীকৃতি দেয়নি। ফলে তারা এখনো স্পর্শকাতর তথ্য বা গোয়েন্দা ব্রিফিং পেতে শুরু করেননি।

বাইডেনের সহকারীরা বলেছেন, ক্ষমতা হস্তান্তর প্রক্রিয়ায় ট্রাম্পের অংশগ্রহণে অস্বীকৃতির কারণে করোনাভাইরাসের টিকা বিতরণ কৌশল নিয়ে পরিকল্পনা প্রণয়ন প্রক্রিয়ায় বাইডেনের টিম অংশ নিতে পারছে না।

সোমবার তার বক্তৃতায় বাইডেন সতর্ক করে বলেছেন, ‘আমরা সমন্বয় না করলে আরো মানুষ মারা যেতে পারে’।

দেশজুড়ে টিকা বিতরণকে একটি বড় কর্মযজ্ঞ আখ্যায়িত করে তিনি বলেন, যদি তার প্রশাসনকে শপথ গ্রহণ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয় এবং ততদিন যদি এই বিতরণ কর্মসূচি শুরু হতে না পারে তাহলে তারা অন্তত এক মাস পিছিয়ে যাবেন।

পরাজয় মানতে কি ট্রাম্পের ওপর চাপ বাড়ছে?

জো বাইডেন জিতেছেন এটি নিশ্চিত হওয়ার পরেই এখনো পর্যন্ত পরাজয় স্বীকার করতে রাজি হননি ডোনাল্ড ট্রাম্প। যদিও দিনে দিনে উভয় দল থেকেই তার উপর চাপ বাড়ছে।

সোমবার রিপাবলিকানরাই কয়েকটি রাজ্যে নির্বাচনের ফল চ্যালেঞ্জ করে করা মামলা পরিত্যাগ করেছেন। রাজ্যগুলো হলো- মিশিগান, জর্জিয়া, পেনসিলভানিয়া ও উইসকনসিন। এসব রাজ্যে মিস্টার বাইডেন জয়লাভ করেছেন।

উইসকনসিনের ইলেকশন কমিশন সোমবার বলেছেন, ট্রাম্প যদি চান তাহলে তার শিবিরকে ওই রাজ্যে ভোট পুনগণনার জন্য আট মিলিয়ন ডলার শোধ করতে হবে।

ওদিকে সাবেক ফার্স্ট লেডি মিশেল ওবামা ইন্সটগ্রামে সব আমেরিকানকে বিশেষ করে জাতীয় নেতাদের নির্বাচন প্রক্রিয়াকে সম্মান করা ও ক্ষমতা হস্তান্তর প্রক্রিয়ায় সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে তাদের দায়িত্ব পালনের আহবান জানিয়েছেন। সূত্র: বিবিসি

সোনালী/আরআর

শর্টলিংকঃ