করোনাকে মহামারি ঘোষণা করে গেজেট প্রকাশের নির্দেশ

সোনালী ডেস্ক: করোনাকে মহামারি ঘোষণা করে গেজেট প্রকাশ করতে বলেছেন হাইকোর্ট। সম্ভব হলে বুধবারের মধ্যে এ বিষয়ে পদক্ষেপ গ্রহণ করতে বলেছেন আদালত। পাশাপাশি করোনা প্রতিরোধে সরকারের পদক্ষেপসমূহ বৃহস্পতিবার সকালের মধ্যে জানাতে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। এ সংক্রান্ত এক রিট আবেদনের শুনানি নিয়ে গতকাল বুধবার বিচারপতি মো.আশরাফুল কামাল ও বিচারপতি সরদার মো. রাশেদ জাহাঙ্গীরের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ নির্দেশনা দেন। আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল ও হুমায়ন কবির পল্লব। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল এসএম ফজলুল হক।
এর আগে গতকাল বুধবার বিদেশ থেকে আগত ব্যক্তিদের বাধ্যতামূলকভাবে সরকারের নির্ধারিত কোয়ারেন্টাইনের রাখার নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে রিট দায়ের করা হয়। এছাড়াও রিটে সুপ্রিম কোর্টসহ দেশের সব আদালত বন্ধের নির্দেশনা চাওয়া হয়। ব্যারিস্টার হুমায়ন কবির পল্লব এ রিট দায়ের করেন। রিটে আইন মন্ত্রণালয় সচিব, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় সচিব, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সচিব, বিমান ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সচিব, স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক, সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেলসহ সংশ্লিষ্টদের বিবাদী করা হয়েছে। এর আগে গত ১৭ মার্চ বিদেশ থেকে বাংলাদেশে আগতদের সংশ্লিষ্ট বন্দর থেকেই বাধ্যতামূলকভাবে সরকারের নিয়ন্ত্রণাধীন কোয়ারেন্টাইনে রাখতে একটি আইনি নোটিশ পাঠানো হয়েছিল।
মানবাধিকার সংগঠন ল’ অ্যান্ড লাইফ ফাউন্ডেশনের পক্ষে ব্যারিস্টার হুমায়ন কবির পল্লব এ নোটিশ পাঠান। নোটিশ গ্রহীতাদের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছিল। কিন্তু সে নোটিশের কোনও জবাব না পাওয়ায় ব্যারিস্টার হুমায়ন কবির পল্লব হাইকোর্টে রিট দায়ের করলেন। ব্যারিস্টার পল্লব বলেন, অনেক যাত্রীকে হোম কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে। এরইমধ্যে তাদের কারণে পরিবারের সদস্যরাও আক্রান্ত হয়েছে। আর বিষয়টি প্রতিনিয়ত বেড়েই চলেছে। তাই এখনই জরুরিভাবে প্র্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ না করলে করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার ধারণ করতে পারে।

শর্টলিংকঃ