এফএনএস: ঢাকা উত্তর সিটি কর-পোরেশনের (ডিএনসিসি) প্যানেল মেয়র ওসমান গণির দাফন সম্পন্ন হয়েছে। গতকাল রোববার বাদ আসর রাজধানীর বাড্ডার আলাতুন নেছা হাই স্কুল মাঠে দ্বিতীয় জানাজা শেষে মরহুমের মরদেহ বনানী কবরস’ানে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে প্রক্রিয়া শেষে সন্ধ্যার দিকে দাফন করা হয়।
ডিএনসিসির জনসংযোগ কর্মকর্তা এসএম মামুন জানান, গুলশান আজাদ মসজিদে মরহুমের প্রথম জানাজা শেষে মরহুমের মরদেহ নগর ভবনে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য রাখা হয়। সেখানে মরহুমের প্রতি শ্রদ্ধা জানান সিটি করপোরেশনের কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ সর্বস্তরের মানুষ। পরে বাড্ডা আলাতুন নেছা হাইস্কুল মাঠে দ্বিতীয় জানাজা শেষে মরহুমের মরদেহ বনানী কবর স’ানে দাফন করা হয়। জানাজার আগে বক্তব্য রাখেন ঢাকা দৰিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন, ঢাকা-১৭ আসনের সংসদ সদস্য কেএম রহমত উলৱাহ, প্রধানমন্ত্রীর একান্ত সচিব সাজ্জাদুল হাসান, স’ানীয় সরকার বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মাহবুবুর রহমান, ঢাকা উত্তর সিটির প্যানেল মেয়র ও বর্তমান দায়িত্বপ্রাপ্ত মেয়র জামাল মোস্তফা ও সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মেসবাহুল ইসলাম প্রমুখ। জানাজায় অংশগ্রহণ করেন সিটি করপোরেশনের কাউন্সি-লর, কর্মকর্তা, আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মী এবং তার দীর্ঘ দিনের রাজনৈতিক সহকর্মীরা। এর আগে গতকাল রোববার বেলা ১১টা ৩৭ মিনিটে সিঙ্গাপুর এয়ার-লাইন্সের একটি ফ্লাইটে ডিএনসিসির প্যানেল মেয়র ওসমান গণি মরদেহ হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছায়। গত শনিবার বাংলাদেশ সময় সকাল সাড়ে ৮টায় সিঙ্গাপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস’ায় তিনি ইন্তেকাল করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৯ বছর। এদিকে প্যানেল মেয়র ওসমান গণির মৃত্যুতে প্রধান-মন্ত্রী শেখ হাসিনা, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের শোক প্রকাশ করা হয়েছে।