স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহীবাসীকে বিশুদ্ধ পানির সরবরাহের জন্য ৪ হাজার ১৫০ কোটি টাকার ‘রাজশাহী ওয়াসা ভূ-উপরিস’ পানি শোধনাগার প্রকল্প’ জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় অনুমোদন হয়েছে।
বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় রাজশাহীর জন্য বৃহৎ এ প্রকল্প অনুমোদন দেয়া হয়। প্রকল্প অনুমোদন দেওয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন এবং কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়র্বজ্জামান লিটন।
এক বিবৃতিতে মেয়র এএইচএম খায়র্বজ্জামান লিটন বলেন, আমি মেয়র থাকাকালে ২০১৩ সালে প্রধানমন্ত্রী চীন সফরে গিয়ে চীনের সঙ্গে দ্বিপৰীয় বৈঠকে যে চুক্তিগুলো স্বাৰরিত হয়। তার মধ্যে এই প্রকল্পটি ছিল। আজ একনেকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ৪ হাজার ১৫০ কোটি টাকার ‘রাজশাহী ওয়াসা ভূ-উপরিস’ পানি শোধনাগার প্রকল্প’ অনুমোদন দিয়েছেন। এটি আমাদের জন্য অনেক বড় সুসংবাদ। রাজশাহীর জন্য একক বৃহত্তম প্রকল্প এটি। প্রকল্পটি অনুমোদন দেওয়ায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ জানাচ্ছি। একইসঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতাও প্রকাশ করছি। আমি দায়িত্ব নেওয়ার পর এই প্রকল্প অনুমোদনের মাধ্যমে রাজশাহীর জন্য নতুন যাত্রা শুর্ব হলো।
উলেৱখ্য, এই প্রকল্পে রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে পৱ্যান্ট স’াপন করা হবে। সেখান থেকে পদ্মার পানি পরিশোধন করে রাজশাহীবাসীর জন্য সরবরাহ করা হবে। বাংলাদেশ ও চীন সরকার যৌথভাবে এই প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করবে। চার বছরের এই প্রকল্পের মেয়াদ জুলাই ২০১৮ থেকে জুন ২০২২ সাল পর্যন্ত সময়সীমা নির্ধারণ করা হয়েছে।