স্টাফ রিপোর্টার: সারাদেশের ন্যায় রাজশাহী জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে রাজশাহী কলেজ মাঠে তিন দিনব্যাপি ৪র্থ জাতীয় উন্নয়ন মেলার গতকাল শুক্রবার দ্বিতীয় দিনে ছিল মানুষের ঢল।
গতকাল ছিল মেলার দ্বিতীয় দিন। মেলায় জেলা প্রশাসনসহ রাজশাহীর বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের ১৮২টি উন্নয়ন বিষয়ক স্টল শোভা পায়। দ্বিতীয় দিনে গতকাল ছুটির দিন থাকায় সকাল থেকে রাত অবধি মেলা প্রাঙ্গনে ছিল নানা বয়সি নারী-পুর্বষের উপচেপড়া ভিড়। প্রতিটি স্টলে গিয়ে মানুষজন আগ্রহ সহকারে তাদের উপস্থাপিত উন্নয়ন কার্যক্রম অবলোকন করেন।
গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে বর্তমান সরকারের মেয়াদে বাংলাদেশে যুগান্তকারী উন্নয়ন সাধিত হয়েছে। বর্তমান সরকারের অর্থনৈতিক. সামাজিক এবং এমডিজি অর্জন সংক্রান্ত উন্নয়নের গতিশীল ধারা সম্পর্কে প্রান্তিক জনগোষ্ঠী ও তর্বণ সমাজের কাছে এর বার্তা পৌঁছে দেয়ার লৰ্যে উন্নয়ন মেলার আয়োজন করা হয়েছে। মেলায় ২০২১ সালের মধ্যে ৰুধা ও দারিদ্রমুক্ত এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নয়নের রূপকল্প বা উন্নত বাংলাদেশের প্রস্তাবনা সম্পর্কেও জনগণ যে অবহিত হচ্ছে তা মেলায় লোকজনের উপস্থিতি দেখে বুঝা যায়।
মেলায় শিৰা প্রতিষ্ঠানের শিৰার্থীদের নিয়ে সরকারের সফলতা বিষয়ক রিয়েলিটি শো প্রদর্শন এবং মুক্তিযুদ্ধ ও সরকারের সফলতাকে উপজীব্য করে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হচ্ছে। মেলায় যথেষ্ট নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।
আজ সমাপনী দিনে সকাল ১১টায় মেলা মঞ্চে “রাজশাহীর বিনিয়োগ সম্ভাবনা ও চ্যালেঞ্জসমূহ” নিয়ে এক সেমিনার অনুষ্ঠিত হবে। এতে প্রধান অতিথি থাকবেন বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপৰের নির্বাহী চেয়ারম্যান কাজী এম আমিনুল ইসলাম। বিশেষ অতিথি থাকবেন বিভাগীয় কমিশনার নূর-উর-রহমান, মহানগর আওয়ামীলীগের সহসভাপতি শাহীন আক্তার রেণী, রাজশাহী চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি মনির্বজ্জামান মনির, রাজশাহী উইমেন চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি রোজেটী নাজনীন, বাংলাদেশ রেশম শিল্প মালিক সমিতির সভাপতি ও দৈনিক সোনালী সংবাদের সম্পাদক লিয়াকত আলী। সভাপতিত্ব করবেন রাজশাহীর জেলা প্রশাসক এস এম আব্দুল কাদের। সন্ধ্যা ৬টায় আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরনী ও সমাপণী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত বৃহস্পতিবার ভিডিও কনফান্সের মাধ্যমে সারাদেশব্যাপি ৪র্থ জাতীয় উন্নয়ন মেলার উদ্বোধন করেন। পরে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র এএইচএম খায়র্বজ্জামান লিটন প্রধান অতিথি হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে মেলার উদ্বোধন করেন।