নওগাঁয় ক্লিনিকে ভুল অপারেশনে এক শিশুর মৃত্যু

16/04/2018 1:06 am0 commentsViews: 15

নওগাঁ প্রতিনিধি: নওগাঁয় একটি বেসরকারি ক্লিনিকে ডাক্তারের ভুল অপারেশনে আল এখলাস (৮) নামের এক শিশুর মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে। এখলাস জেলার আত্রাই উপজেলার দিঘা উত্তরপাড়া গ্রামের জনৈক শুকবরের ছেলে ও শুটকীগাছা কেজি স্কুলের প্রথম শ্রেণির ছাত্র। এ ঘটনায় শিশুর স্বজনরা ও এলাকাবাসী ক্লিনিক ওই ক্লিনিক ঘেরাও ও ক্লিনিকের আসবাবপত্র ভাঙচুর করে। তারা ডাক্তার ও ক্লিনিকের মালিকের বিচার দাবি করেছেন। এ ঘটনার পর অভিযুক্ত ডাক্তার ও ক্লিনিক মালিক শাহ নূরুল ইসলাম প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে পালিয়ে গেছেন।
নিহতের পিতা শুকবর ও স্বজনরা জানান শনিবার বেলা ৩টার সময় তার ছেলেকে নিয়ে গলায় টনসিল রোগ নিরাময়ের জন্য শহরের চকএনায়েত মহলৱায় বেসরকারি ক্লিনিক শাহ নার্সিং হোম অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে নাক, কান ও গলা বিশেষজ্ঞ ডা. আসাফুদ্দৌলার নিকট যান। ডাক্তারের সিদ্ধান্ত মোতাবেক ওই ক্লিনিকে সাড়ে ৬ হাজার টাকায় অপারেশনের চুক্তিতে ভর্তি করান বেলা ৩টার দিকে। টাকা বুঝিয়ে নিয়ে রাত সাড়ে ১০টার দিকে রোগীকে অজ্ঞান করে অপারেশন করেন ওই ডাক্তার। অপারেশনের পর শিশু রোগীটির আর জ্ঞান ফিরেনি। ডাক্তারকে বললে একটু পরে জ্ঞান ফিরবে বলে বিভিন্ন তালবাহানা করেন। পরে ডাক্তার ওই রোগীকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করার পরামর্শ দেন। পরে রোগীকে অ্যাম্বুলেন্সে তুলে দিয়ে ওই ডাক্তার, ক্লিনিকের কর্মকর্তা-কর্মচারি সবাই ক্লিনিকে তালা লাগিয়ে পালিয়ে যায়। রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রোগীকে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার মৃত ঘোষণা করেন। তারা মৃত রোগীকে নিয়ে ভোরে ওই ক্লিনিকে ফিরে এসে দেখে ক্লিনিকটি তালাবদ্ধ। নিহতের স্বজনরা ক্লিনিক ঘেরাও করে রাখে।
এ ব্যাপারে নওগাঁর সিভিল সার্জন ডা. মোমিনুল হক জানান, নামসর্বস্ব ক্লিনিক বন্ধসহ অপচিকিৎসা বন্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। নওগাঁ সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ সমিত কুমার কু-ু জানান, শিশু মৃত্যুর এ ঘটনায় দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এসব অপতৎপরতা রোধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে জানান তিনি। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও তিনি জানিয়েছেন।

Leave a Reply